আপডেট : ১০ জানুয়ারী, ২০১৮ ১৩:০৯

‘ধর্ষণের কথা জানালে ভিডিও ইন্টারনেটে ভাইরাল করে দেব’

অনলাইন ডেস্ক
‘ধর্ষণের কথা জানালে ভিডিও ইন্টারনেটে ভাইরাল করে দেব’

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের চর্ম ও যৌন রোগ বিভাগের চিকিৎসা কর্মকর্তা ডা. রিয়াদ সিদ্দিকী প্রাণ। ‘ধর্ষণের কথা কাউকে জানালে তোমার ধর্ষণের যেসব ভিডিও আমার কাছে আছে তা ইন্টারনেটে ছেড়ে ভাইরাল করে দেব। তখন কী হবে? মুখ দেখাতে পারবে? এসব বলে বলে বিএসএমএমইউর চিকিৎসক রিয়াদ সিদ্দিকী বারবার আমার মেয়েকে ধর্ষণ করেছেন।’ বেসরকারি সংবাদমাধ্যমকে দেয়া সাক্ষাৎকারে ধর্ষণের শিকার চর্মরোগী কলেজছাত্রীর বাবা মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এসব কথা বলেন।

ধর্ষণের অভিযোগে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের চর্ম ও যৌন রোগ বিভাগের চিকিৎসা কর্মকর্তা ডা. রিয়াদ সিদ্দিকী প্রাণের বিরুদ্ধে বাদী হয়ে ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে শাহবাগ থানায় মামলা করেছেন।

কলেজছাত্রীর বাবা গণমাধ্যমে সাক্ষাৎতকারে জানিয়েছেস চিকিৎসক রিয়াদ মেয়েকে ভয় দেখিয়েছে। বিষাক্ত ইনজেকশন দিয়ে মেরে ফেলার হুমকি দিয়েছে, ইন্টারনেটে ভিডিও ভাইরাল করার হুমকি দিয়েছে, ছাদ থেকে ফেলে দেওয়ার হুমকি দিয়েছে এবং শেষমেশ মেয়ের মরণব্যাধি ক্যানসার হয়েছে বলেও হুমকি দিয়ে মেয়েকে বলেছে, ‘বেঁচে থাকতে হলে তো আমার কাছেই আসতে হবে। সুতরাং কাউকে বললে ফল ভালো হবে না।’

এব্যাপারে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের চিকিৎসক রিয়াদ সিদ্দিকীর সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলেও তিনি ফোন ধরেননি।

উপরে