আপডেট : ২৩ জুলাই, ২০১৬ ১২:১৯

অক্টোপাসই নাকি এলিয়েন! গবেষণা কী বলছে?

অনলাইন ডেস্ক
অক্টোপাসই নাকি এলিয়েন! গবেষণা কী বলছে?

বহুদিন ধরেই বিজ্ঞানীরা খুঁজে চলেছেন এমন কোনও সূত্র যা থেকে সমাধান করা যায় এলিয়েন বা ভিনগ্রহের প্রাণীদের রহস্য। সেই গবেষণা থেকেই উঠে এল চাঞ্চল্যকর তথ্য।

এলিয়েন বা ভিনগ্রহের প্রাণীরা আছে কি নেই, সেই নিয়ে সারা পৃথিবীতে জল্পনা এবং গবেষণার শেষ নেই। সম্প্রতি একটি চাঞ্চল্যকর তথ্য সামনে এসেছে। চিকাগো বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি গবেষক দল অক্টোপাসদের ডিএনএ পরীক্ষা করে জানিয়েছেন যে এই প্রাণী কখনওই এই গ্রহের হতে পারে না। 

তাঁদের বক্তব্য, অক্টোপাসদের ডিএনএ ৩৩,০০০ প্রোটিন-কোডিং জিনে সমৃদ্ধ যা মানুষের থেকে বহুগুণ বেশি তো বটেই, পাশাপাশি, এই গ্রহের অন্য প্রাণীদের থেকেও সম্পূর্ণভাবে আলাদা। এর আগেও বহু গবেষণায় বলা হয়েছে যে মোলাস্কা প্রজাতির অন্তর্ভূক্ত হলেও সেফালোপড বা অক্টোপাসের সঙ্গে ওই প্রজাতির অন্যান্য প্রাণীদের কোনও মিলই নেই। 

চিকাগো বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা আরও জানিয়েছেন যে অক্টোপাসের জিনোম এমনভাবেই গঠিত এবং বিবর্তিত হয়েছে যা তখনই ঘটে যখন কোনও প্রাণীকে তার নিজস্ব পরিবেশ থেকে সম্পূর্ণ ভিন্ন পরিবেশে ছেড়ে দেওয়া হয়। 

তার মানে কি এলিয়েনরা সত্যিই রয়েছে এবং কোনও এক আদিম যুগে তারা পৃথিবীতে পদার্পণ করেছিল? অক্টোপাসেরা কি সেই এলিয়েনদেরই বিবর্তিত রূপ? 

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/বুলা 

 

উপরে