আপডেট : ৮ জুলাই, ২০২০ ১৪:০৩

১১৬ দিন পর ক্রিকেট ফিরছে আজ

অনলাইন ডেস্ক
১১৬ দিন পর ক্রিকেট ফিরছে আজ

গত শতাব্দীর পঞ্চাশের দশকে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের কারণে বেশ কয়েকবছর বন্ধ ছিল ক্রিকেট। সেবার বন্ধের কারণ ছিল ‘যুদ্ধ’। সেই যুদ্ধ শেষে শেষে ছয়-সাত দশকে কখনওই দীর্ঘবিরতি পড়েনি আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে। কিন্তু চলতি বছরে অদৃশ্য এক ভাইরাসের আক্রমণে বন্ধ হয়ে গেল ক্রিকেট। মাঠে গড়াল না একটি বলও।

করোনাভাইরাসের কারণে গত ১৩ মার্চের পর থেকেই বন্ধ ছিল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট। কিছু দেশে হয়েছে ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক অস্বীকৃত নানান টুর্নামেন্ট। সেগুলোর গ্রহণযোগ্যতা নেই বললেই চলে। করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার অপেক্ষায় কেটে গেছে প্রায় চার মাস। এখনও বিশ্বের বেশিরভাগ ‘যুদ্ধ’ করছে এই ভাইরাসের বিরুদ্ধে।

এর মধ্যেই নিজেদের দেশের পরিস্থিতি ভালোর দিকে থাকায় আন্তর্জাতিক ক্রিকেট শুরুর সাহস দেখাল ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)। যার কল্যাণে ১১৬ দিনের লম্বা বিরতির পর আজ (বুধবার) থেকে পুনরায় শুরু হচ্ছে ক্রিকেট। গত ১৩ মার্চ সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডের ওয়ানডের পর আজই প্রথমবারের মতো টেস্ট খেলতে নামবে দুইটি আন্তর্জাতিক দল।

এজন্য অবশ্য কম ব্যবস্থাপনার মধ্য দিয়ে যেতে হয়নি ইসিবিকে। ম্যানচেস্টারের ওল্ড ট্র্যাফোর্ড এবং সাউদাম্পটনের রোজ বোল স্টেডিয়াম ও তার আশপাশের জায়গাকে করতে হয়ে পুরোপুরি বায়ো সিকিউর। যেখানে টিম হোটেলে রীতিমতো বন্দী অবস্থায় থেকে অনুশীলন ও নিজেদের মধ্যকার প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেছে সফরকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

বুধবার থেকে শুরু হতে যাওয়া টেস্টেও মানা হবে এ নীতি। দুই দলের খেলোয়াড়দের বায়ো সিকিউর বাবলের মধ্যেই রাখা পুরো সিরিজ ধরে। করোনাভাইরাসের কারণে দর্শক প্রবেশের অনুমতি নেই। ম্যাচ অফিসিয়াল এবং মাঠকর্মীদের বিষয়েও রয়েছে বাড়তি সতর্কতা ও স্বাস্থ্য নিরাপত্তা।

এতকিছু করে হলেও আয়োজকদের মধ্যে ক্রিকেট ফেরানোর স্বস্তিটাই কাজ করছে বেশি। দুপুরে সাউদাম্পটনের রোজ বোলে বাংলাদেশ সময় দুপুর সাড়ে ৩টায় সকল অপেক্ষার অবসান ঘটিয়ে টস করতে নামবেন ইংলিশ অধিনায়ক বেন স্টোকস এবং ক্যারিবীয় অধিনায়ক জেসন হোল্ডার। সারা বিশ্বের সকল ক্রিকেটপ্রেমী অপেক্ষায় রয়েছেন এ মুহূর্তটির জন্যই।

করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়তে থাকা যোদ্ধাদের প্রতি সম্মানে এ সিরিজের নাম রাখা হয়েছে ‘রেইজ দ্য ব্যাট’ সিরিজ। দুই দলের খেলোয়াড়দের জার্সিতে থাকবে ফ্রন্টলাইনার যোদ্ধাদের নাম। এর বাইরে যুক্তরাষ্ট্রে চলমান বর্ণবাদবিরোধী আন্দোলনের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করে জার্সিতে রাখা হবে ‘ব্ল্যাক লাইভস ম্যাটার’ লোগো।

ইংল্যান্ড স্কোয়াড: বেন স্টোকস (অধিনায়ক), ররি বার্ন, জ্যাক ক্রলি, জস বাটলার, জো ডেনলি, অলি পোপ, ডম সিবলে, ক্রিস ওকস, মার্ক উড, জোমিনিক বেস, জোফরা আর্চার, জেমস অ্যান্ডারস, স্টুয়ার্ট ব্রড।

রিজার্ভ: জেমস ব্র্যাসে, স্যাম কুরান, বেন ফকস, ড্যান লরেন্স, জ্যাক লিচ, সাকিব মাহমুদ, ক্রেইগ ওভারটন, অলি রবিনসন, ওলি স্টোন।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ স্কোয়াড: জারমেইন ব্ল্যাকউড, এনক্রুমা বোনার, ক্রেইগ ব্রাথওয়েট, শামার ব্রুকস, জন ক্যাম্পবেল, রস্টোন চেজ, রাহকিম কর্ণওয়াল, শেন ডাওরিচ, চিমার হোল্ডার, জেসন হোল্ডার (অধিনায়ক), শাই হোপ, আলঝারি জোসেফ, রেয়মন রেইফার এবং কেমার রোচ।

রিজার্ভ স্কোয়াড: সুনিল অ্যামব্রিস, জশুয়া ডি সিলভা, শ্যানন গ্যাব্রিয়েল, কিয়ন হার্ডিং, কাইল মেয়ারস, প্রেস্টন ম্যাকসুইন, মারকুইনো মাইন্ডলি, শেন মোসলি, অ্যান্ডারসন ফিলিপ, ওশেন থমাস এবং জোমেল ওয়ারিকান। সূত্র: জাগোনিউজ

উপরে