আপডেট : ১৮ ডিসেম্বর, ২০১৬ ১৫:৫২

মৃত্যু দৃশ্যে অভিনয় করার সময় মঞ্চেই প্রাণ হারালেন টিক্কা খান

অনলাইন ডেস্ক
মৃত্যু দৃশ্যে অভিনয় করার সময় মঞ্চেই প্রাণ হারালেন টিক্কা খান

চিরায়ত বাংলার ঐতিহ্যবাহী যাত্রাপালা ‘শহীদ কারবালা’ নাটকে পিতার মৃত্যু দৃশ্যে অভিনয় করার সময় মঞ্চেই প্রাণ হারালেন আলমগীর হোসেন টিক্কা খান নামের স্থানীয় এক অভিনয় শিল্পী।
 
শুক্রবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে টাঙ্গাইলের নাগরপুর উপজেলা ধলেশ্বরী নদী ঘেষা খামার ধল্লা গ্রামে হৃদয় বিদায়ক এ ঘটনা ঘটে।
 
নিহত আলমগীর হোসেন টিক্কা খান ওই গ্রামের মৃত রবি খানের ছেলে ও ওয়ার্ড বিএনপির সাধারণ সম্পাদক।
 
বিজয় দিবস উদযাপন উপলক্ষে এই মঞ্চ নাটকের আয়োজন করেছিল স্থানীয়রা।
 
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মহান বিজয় দিবস উদযাপন উপলক্ষে শুক্রবার রাতে খামার ধল্লা নবারুন সমিতির উদ্যোগে স্থানীয় খেলার মাঠে শহীদ 'কারবালা নাটক' মঞ্চায়নের আয়োজন করা হয়।
 
ওই নাটকে ইমামের ছেলে কাশেমের চরিত্রে অভিনয় করেন আলমগীর হোসেন টিক্কা খান। অভিনয়ের এক পর্যায়ে রাত সাড়ে ১১টার দিকে ইমামের (পিতার মৃত্যু দৃশ্যে) অভিনয় করতে গিয়ে মঞ্চেই ঢলে পরেন তিনি।
 
আয়োজক বা উপস্থিত দর্শকরা প্রথমে এটাকে নাটকের অভিনয় মনে করলেও দীর্ঘক্ষণ মঞ্চে পড়ে থাকায় এবং পরবর্তী সংলাপ না বলায় লোকজনের সন্দেহ হয়। পরে অচেতন অবস্থায় মঞ্চ থেকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নিয়ে এলে কর্তব্যরত  চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পরদিন সকালে ধল্লা কবরস্থানে আলমগীর হোসেন খানকে দাফন করা হয়।
 
আলমগীর হোসেন টিক্কা খান তিন সন্তানের জনক ছিলেন। এ ঘটনায় তার পরিবারে চলছে শোকের মাতম। 
 
রোববার সরেজমিন টিক্কা খানের বাড়িতে গেলে সেখানে এক হৃদয় বিদায়ক দৃশ্যের অবতারণা হয়। স্বামীর অকাল মৃত্যুতে শোক সইতে না পেরে স্ত্রী বেলি আক্তার (৩৫) বারবার মুর্ছা যাচ্ছেন। দেড় বছরের শিশু পুত্র  রাইয়ানকে বুকে জড়িয়ে আর্তনাদ করছেন। পাশেই বড় মেয়ে আফসিয়া তানিয়া আর ছোট মেয়ে তমা উপস্থিত জনতার দিকে তাকিয়ে হাউ-মাউ করে কাঁদছে আর বলছে আমার বাবাকে এনে দাও।
 
এ সময় স্ত্রী ও সন্তানদের আহাজারীতে সেখানকার আকাশ-বাতাস ভারী হয়ে উঠে। প্রতিবেশিরা শান্তনা দেয়ার ভাষাটুকু যেন হারিয়ে ফেলেছে।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/বুলা

উপরে