আপডেট : ৯ নভেম্বর, ২০১৭ ২১:৫৩

সৌন্দর্যের নগরী পারপিনিয়

অনলাইন ডেস্ক
সৌন্দর্যের নগরী পারপিনিয়

ফ্রান্সের পারপিনিয়! রাজধানী প্যারিস থেকে প্রায় ৮৪৮ কিমি দূরের প্যারপিনিয়। পিরেনেস-ওরিয়েন্টাল ৪১১৬ বর্গ কিমি আয়তন বিশিষ্ট, ভূমধ্যসাগর সংলগ্ন, স্পেন ও অ্যান্ডরা সীমান্তবর্তী ফ্রান্স এর এক পর্যটন এলাকা। ৬৬ ডিপার্টমেন্টের সব গ্রাম ও শহরই আপন আপন বৈশিষ্টে সতন্ত্র। পিরেনেস ওরিয়েন্টাল এর প্রধান শহর এটি। এছাড়াও বিভাগের উল্লেখযোগ্য অন্যান্য শহরের মধ্যে আছে, ভিলফ্রন্স দো ক্লনফন, প্রাদ, তুতাভেল, ভেরনে লো বাঁ, লো বুলো, ছেরে, আরজুলেস, কলিউগ, কানে, সালস আরও অনেক।

পারপিনিয় শহরের গোড়া পত্তন কখন তা বলা মুশকিল তবে ৯২৭ সালে এর নাম ছিল Perpinianum. পর্যায়ক্রমে নামের পরিবর্তন হতে হতে এখন পারপিনিয়। ১৩ শতাব্দীতে এটা মাইওরকা রাজ্যের রাজধানী ছিল। কাতালান প্রভাবিত এ শহরে কাস্টিয়ে যা জেলখানা নামে সবার কাছেই পরিচিত, রাজা মাইওরকার রাজবাড়ী ও অনেক পুরাতন স্থাপনা আছে যেগুলো ভ্রমণ বিলাসীদের উপভোগ্য বলে আমার ধারনা। পারপিনিয় থেকে ৫১ কিমি দূর ভিলফঁস, বাস বাঁ ট্রেন ভাড়া মাত্র ১ ইউরো। ১০৯৮ সালে প্রতিষ্ঠিত এ শহরে দেখা যাবে ১০০০ ধাপ বিশিষ্ট পৃথিবীর সর্ব দীর্ঘ আভ্যন্তরীণ সিঁড়ি, যা পাহাড়ের অভ্যন্তরে অবস্থিত হলেও বাহির থেকে কোন ভাবেই বুঝা সম্ভব না। ১৭০৭ তে ইঞ্জিনিয়ার মার্শাল বু-বঁ ফ্রান্স এর নিরপত্তা রক্ষার্থে বিশাল আকৃতির দেয়াল, ফোর্ট লিবরিয়া এবং কোভা বিসথ্রা নির্মাণ করেন যা পরবর্তী সময়ে উনেস্কো বিশ্ব ঐতিহ্য হিসেবে ঘোষণা করেছে। এখান কার হলুদ ট্রেনে ভ্রমণ করে আপনি উপভোগ করতে পারেন পাহাড় আর পাহাড়ের পাদদেশে বসবাস কৃত মানুষের জীবন ব্যবস্থা। পাহাড়ের গায়ে সবুজ ঘন বন, রাস্তা, ট্রেন লাইন আপনাকে দেবে বাড়তি চমক। উঁচুনিচু রাস্তা পেরিয়ে আপনি ঘুরে আসতে পারেন অ্যান্ডরা নামক দেশ থেকে। ভিলফ্রন্স এর পাশেই আছে ভেরনে লো বাঁ, যার পাশেই নয়ানাভিরাম ২,৮০০ মিঃ উঁচু কানিগু পাহাড় সহ ছোট বড় অনেক পাহাড়।

আর সমতলে ভূমধ্যসাগর দেখতে হলে যেতে হবে ১৫ কিমি দূরের কানে, সাঁ-সিপ্রিয়া বা ত্রোহাই সৈকতে। গ্রীষ্মের উত্তাল সৈকত আর দর্শনার্থী দেখে অভিভূত না হওয়ার কোন কারন নেই। এছাড়া কলিউর, বাইনুলস সুগ ম্যার, পোর্ট ভন্দগ এ গেলে পাহাড় আর সমুদ্রের সন্ধি স্থান পাবেন। পাবেন জঙ্গল এর দেখা। অনেক উঁচু পাহাড় থেকে উপভোগ করতে পারবেন সমুদ্রের গর্জন। এই সমুদ্র সৈকত এর এক পাশে স্পেন সীমান্ত আর অন্য পাশে ইটালী। সমতল কিংবা পাহাড়ের পাদদেশে নানা ধরনের আঙ্গুর ও অন্যান্য ফলের বাগান দেখার জন্য আপনাকে বাড়তি সময় বা অন্য কোথাও যেতে হবে না। পথের ধারেই পেয়ে যাবেন এসব বাগান। পারপিনিয় শহর থেকে ৩০ কিমি দূরে স্পেন এর সীমান্ত। তেজেভে নামক ট্রেনে ৫ ঘন্টায় প্যারিস আর ১ ঘন্টা ২০ মিনিটে বার্সেলোনা যাওয়া যায়।

উপরে