আপডেট : ১২ মার্চ, ২০১৬ ১৮:১০

শারাপোভা কোর্টে ফিরতে মরিয়া

স্পোর্টস ডেস্ক
শারাপোভা কোর্টে ফিরতে মরিয়া

বৃহস্পতিবার রাফায়েল নাদাল তীব্র সমালোচনা করে মারিয়া শারাপোভার নির্বাসনের দাবি জানিয়েছিলেন। শুক্রবার রাশিয়ান টেনিস তারকা পড়লেন অ্যান্ডি মারের তোপে। মারেরও দাবি শারাপোভার নির্বাসন।

এদিকে, বিশ্বকে নিষিদ্ধ মাদক নেওয়ার খবর জানানোর পরের ২৪ ঘণ্টার মধ্যে তাঁর পাশ থেকে সরে গেছে একাধিক নামী-দামি স্পনসর। তবে দুঃসময়ের মধ্যেই মারিয়া শারাপোভার পাশে দাঁড়িয়েছে তাঁর র‌্যাকেট প্রস্তুতকারী সংস্থা। সংস্থার মালিক জোহান অ্যালিয়াশ জানিয়েছেন, ২০১১-য় শারাপোভার সঙ্গে তাঁর কোম্পানির যে আর্থিক চুক্তি হয়েছিল সেটা চলবে। অ্যালিয়াশের মনে হয়েছে, এক সপ্তাহ আগে নিষিদ্ধ ড্রাগ, মেলডোনিয়াম নিয়ে অস্ট্রেলীয় ওপেনে তাঁর ডোপ পরীক্ষায় ব্যর্থ হওয়ার কথা টেনিস বিশ্বকে জানানোর মধ্যে সততা আছে! শুক্রবার অ্যালিয়াশ বলেছেন, ‘‘টেনিস দুনিয়ায় শারাপোভার সততা অজস্র তরুণী খেলোয়াড়ের কাছে উদাহরণ। নিজের ভুল স্বীকার করে শারাপোভা আবার সততার পরিচয়ই দিল। তাই ওর পাশ থেকে সরে যাওয়ার প্রশ্নই নেই। আমার মনে হয় না আমি কোনও ভুল করেছি।’’

র‌্যাকেট কোম্পানির মালিকের বিবৃতিতে বিস্মিত একই কোম্পানির র‌্যাকেট ব্যবহার করা বিশ্বের দু’নম্বর পুরুষ খেলোয়াড় অ্যান্ডি মারে! ইন্ডিয়ান ওয়েলস চ্যাম্পিয়নশিপে অংশ নিতে তিনি এখন ক্যালিফোর্নিয়ায়। সেখানেই বৃহস্পতিবার রাফায়েল নাদাল তীব্র সমালোচনা করে শারাপোভার নির্বাসনের দাবি জানিয়েছিলেন। শুক্রবার শারাপোবা পড়লেন মারের তোপে। মারেরও দাবি শারাপোভার নির্বাসন। কিন্তু র‌্যাকেট প্রস্তুতকারী সংস্থার মালিকের বিরুদ্ধেও মারে সরব। বলেছেন, ‘‘আমি থাকলে চুক্তি বাড়াতাম না। গত কয়েকদিন ধরে যা হচ্ছে, তাতে এখনই অন্যায়ের প্রতিবাদ করার সময়। পারফরম্যান্স-বর্ধক ড্রাগ নেওয়াকে কোনভাবে সমর্থন করা যায় না।’’

২৮ বছর বয়সী পাঁচটি গ্র্যান্ড স্ল্যামজয়ী রুশ তারকার অবশ্য এই বিতর্কে কোন প্রতিক্রিয়া সংবাদমাধ্যম জানতে পারেনি। বরং তারা দেখছে বুধবার থেকে শারাপোভা লস অ্যাঞ্জেলেসের সমুদ্রসৈকতে ব্যক্তিগত ট্রেনারের সঙ্গে কীভাবে অনুশীলনে নেমে পড়েছেন। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদমাধ্যম তাঁকে লস অ্যাঞ্জলেসে জিমেও যেতে দেখেছে। তাঁর র‌্যাকেট প্রস্তুতকারী সংস্থার মালিক বলেছেন, ‘‘আমার মনে হয়, যতদিন শারাপোভা নির্বাসনপর্ব চলবে সেই সময়টা ও খুদে খেলোয়াড়দের কোচিং করিয়ে যাক। এটাই ওর আদর্শ কাজ হবে।’’
 
এই মন্তব্যেরও কোন প্রতিক্রিয়া রুশ সুন্দরীর কাছে পাওয়া যায়নি। বরং সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং ওয়েবসাইটে সমর্থকদের উদ্দেশে তাঁর বার্তা, ‘আমি আবার ফিরব। সেই লক্ষ্য নিয়েই আবার আমি শুরু করেছি ঘাম ঝরাতে। সমুদ্রসৈকত থেকে জিম, সর্বত্রই ট্রেনিং করেছি। আর সেটা করার সময়ই দেখলাম সাংবাদিকরা আবার আমার পিছু নিয়েছে’!

শনিবার আন্তর্জাতিক টেনিস সংস্থার (আইটিএফ) শারাপোভার নির্বাসনের কথা ঘোষণা করার কথা। জানিয়ে দেওয়ার কথা শারাপোভার ট্রাইবুনালের তারিখও।

 

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/আইএম

 

উপরে