আপডেট : ১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ১৬:৪০

অবশেষে মিলল খালেদার রায়ের কপি, জামিন আবেদন কাল

অনলাইন ডেস্ক
অবশেষে মিলল খালেদার রায়ের কপি, জামিন আবেদন কাল

দুর্নীতি মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে পাঁচ বছরের কারাদণ্ড দিয়ে ঘোষণা করা রায়ের অনুলিপি পেয়েছেন তার আইনজীবীরা। সোমবার বিকাল সোয়া চারটার দিকে ১১৭৪ পৃষ্ঠার রায়ের অনুলিপি আদালত থেকে বুঝে নেন খালেদা জিয়ার আইনজীবী সানাউল্লাহ মিয়া।  ৬৩২ পৃষ্ঠার রায়ের অনুলিপি হয়েছে ১১৭৪ পৃষ্ঠা। এর মধ্যে ১১৬৮ পৃষ্ঠা রায়ের বিবরণ এবং ছয় পৃষ্ঠা মূল আদেশ।

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলায় গত ৮ ফেব্রুয়ারি রায় ঘোষণার পর থেকে সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়া কারাগারে বন্দী। রায়ের কপি না পাওয়ায় আপিল ও জামিন আবেদন করা যাচ্ছে না। বিএনপি নেত্রীর আইনজীবীরা রায়ের দিন ১১ ফেব্রুয়ারি আপিলের কথা জানিয়েছিলেন। তবে সোমবার তারা রায়ের অনুলিপি পেতে প্রয়োজনীয় পাঁচ হাজার টাকা জমা দেন।

এরপর থেকে প্রতিদিনই রায়ের কপি পাওয়ার আশার কথা জানিয়ে আসছিলেন খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা। গত শুক্রবার বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অভিযোগ করেন, তারা যেন জামিন আবেদন করতে না পারেন, সে জন্যই রায়ের কপি দিতে ইচ্ছাকৃত বিলম্ব করা হচ্ছে।

ফখরুল সেদিন বলেন, ‘বেগম জিয়ার জামিনের ব্যপারে সার্টিফাইড কপির ব্যাপারে ইচ্ছাকৃত ভাবে ধুম্রজাল সৃষ্টি করা হচ্ছে। আমরা তার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। বেআইনিভাবে আজকে তার রায়ের সার্টিফাইড কপি দেয়া হচ্ছে না। এটা সম্পূর্ণভাবে আইনের লঙ্ঘন।’   

খালেদা জিয়ার আইনজীবী সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি জয়নাল আবেদীনের দাবি, পাঁচ কার্যদিবসের মধ্যে রায়ের কপি দেয়ার বাধ্যবাধকতা আছে। রবিবার সকালে সানাউল্লাহ মিয়াসহ আইনজীবীরা জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলার বিচারক আখতারুজ্জামানের আদালতে আবার রায়ের কপি আনতে চান। 

সেখান থেকে বের হয়ে সানাউল্লাহ বলেন, ‘তার পেশকারের মাধ্যমে (বিচারক) জানিয়েছেন, রবিবার বা সোমবার রায়ের সার্টিফাইড কপি দেবেন। যদি রবিবার দিতে না পারেন, সোমবার অবশ্যই দেবেন।’ বিএনপি নেত্রীর এই আইনজীবী বলেন, ‘বিচারক আজ ওপেন কোর্টে জানিয়েছেন, আগামীকাল দেবেন। এখন দেখি দেয় কি না।’

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/রাসেল

উপরে