আপডেট : ২৯ মার্চ, ২০১৬ ১৫:৩২

হ্যাকিং নয়, ব্যাংকের অভ্যন্তরীন যোগসাজশেই রিজার্ভ চুরি : বিএনপি

অনলাইন ডেস্ক
হ্যাকিং নয়, ব্যাংকের অভ্যন্তরীন যোগসাজশেই রিজার্ভ চুরি : বিএনপি

বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভের অর্থ চুরি বিদেশ থেকে হ্যাকিং-এর  মাধ্যমে হয়নি, ব্যাংকের অভ্যন্তরে স্থাপিত ‘সুইফটনেট’ কম্পিউটারের মাধ্যমে বার্তা পাঠিয়ে চুরি করা হয়েছে বলে দাবি করেছে বিএনপি। অর্থ চুরির বিষয়ে দেশি-বিদেশি বিশেষজ্ঞদের সমন্বয়ে করা গবেষণা প্রতিবেদনের বরাত দিয়ে এই দাবি করেছে দলটি। 

মঙ্গলবার (২৯মার্চ) সকালে বিএনপি চেয়ারপারসনের গুলশান কার্যালয়ে গবেষণাটি উপস্থাপন করতে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

গবেষণায় দাবি করা হয়, বেলজিয়ামের মালিকানার সুইফট সিস্টেম হ্যাক করার নজির নেই। প্রতিষ্ঠানের প্রধান মাইক ফিসের উদ্ধৃতি তুলে ধরে বলা হয়, ভুল তথ্য দিয়ে সুইফটনেট কম্পিউটারে বার্তা পাঠানোর চেষ্টা করলে সঙ্গে সঙ্গে সতর্ক করা হয়। এ ছাড়া সুইফনেট হ্যাকিং-এর বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার সায়েন্সের এক অধ্যাপকের মতামত নেওয়া হয় প্রতিবেদনে।

গবেষণায় আরো দাবি করা হয়, সুইফটনেটের পাসওয়ার্ড শুধুমাত্র বাংলাদেশ ব্যাংকের কাছেই থাকে। ব্যাংকের নিয়োজিত ব্যক্তি সশরীরে নিদিষ্ট চাবি ব্যবহার করেই শুধু সুইফটনেট কম্পিউটারে প্রবেশ করতে পারেন।

বিএনপির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য শামা ওবায়েদ বলেন, ‘আমরা লজিক দিয়ে দেখেছি, আমরা অ্যানালাইসিস করে দেখেছি যে, বাংলাদেশ ব্যাংকের ভেতরকার কেউ যদি ইনভলভ (জড়িত) না থাকে, তাহলে এটা সম্ভব না।’

সংবাদ সম্মেলনে মির্জা ফখরুল অর্থ চুরির এই ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে তা জনসম্মুখে প্রকাশের দাবি জানান। তিনি বলেন, ‘শুধুমাত্র গভর্নরের পদত্যাগ এ সমস্যার সমাধান নয়। নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে প্রকৃত সত্য উদঘাটন করে দায়ী ব্যক্তিদের বিচারের আওতায় আনতে হবে। সরকার কোনোভাবেই এর দায় এড়াতে পারে না। সরকার এখন পর্যন্ত কোনো বিশ্বাসযোগ্য ব্যাখ্যাও দিতে পারেনি।’
এ ছাড়া বাংলাদেশ ব্যাংক কেন এখনো তাদের তিনটি সুইফটনেট কম্পিউটারের অপারেটরের নাম প্রকাশ করেনি তাও জানতে চাওয়া হয় সংবাদ সম্মেলনে।

গত ৫ ফেব্রুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল রিজার্ভ ব্যাংক থেকে জালিয়াতি করে বাংলাদেশ ব্যাংকের ১০ কোটি ১০ লাখ মার্কিন ডলার চুরি করে দুর্বৃত্তরা। এর মধ্যে আট কোটি ১০ ডলার যায় ফিলিপাইনে ও দুই কোটি যায় শ্রীলঙ্কায়। শ্রীলঙ্কা থেকে অর্থ উদ্ধার করা হয়েছে বলে দাবি করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। রিজার্ভ চুরির ঘটনার জের ধরে সম্প্রতি গভর্নর পদ থেকে সরে দাঁড়ান ড. আতিউর রহমান।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে