আপডেট : ৩ জানুয়ারী, ২০১৬ ১২:৫০

রাষ্ট্রপতির জন্মদিন পালন করলো মালয়েশিয়া আওয়ামী লীগ

মোস্তফা ইমরান, মালয়েশিয়া থেকে
রাষ্ট্রপতির জন্মদিন পালন করলো মালয়েশিয়া আওয়ামী লীগ

বছরের প্রথমদিন রাষ্ট্রপতি মো. আব্দুল হামিদ এর ৭২তম জন্মদিন ছিল। আওয়ামী লীগের এক সময়ের ত্যাগী এই নেতার জন্মদিন পালন করেছে মালয়েশিয়া আওয়ামী পরিবার। শুক্রবার রাজধানী কুয়ালালামপুরের এমএমএস হলের বলরুমে কেক কেটে জন্মদিন পালন করে দলটির নেতাকর্মীরা। এসময় টেলিফোনে নেতাকর্মীদের নতুন বছরের শুভেচ্ছা জানান রাষ্ট্রপতি স্বয়ং।

জন্মদিন উপলক্ষে সন্ধ্যা থেকেই দুর দুরান্ত থেকে ছুটে আসেন মালয়েশিয়া আওয়ামী লীগ ও এর সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা। স্থানীয় সময় রাত দশটায় কেক কেটে বাংলাদেশের ২০তম রাষ্ট্রপতির জন্মদিন পালন করেন তারা।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন মালয়েশিয়া আওয়ামী লীগ নেতা রাশেদ বাদল, আব্দুল করিম, এমদাদুল হক সবুজ, শাখাওয়াত হক জোসেফ, সাইফুল ইসলাম সিরাজ বীর মুক্তিযোদ্ধা দেলোয়ার হোসেন মজনু, যুবলীগের আহ্বায়ক তাজকীর আহমেদ, যুগ্ন-আহ্বায়ক মনসুর আল বাসার সোহেল, জহিরুল ইসলাম জহির, রেজাউল হক লায়ন, মাহবুব আলম কাজল, শিশির, মাহমুদ, স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি বি এম বাবুল হাসান, যুগ্ন-সাধারণ সম্পাদক সাইদুর রহমান সরকার শ্রমিকলীগ নেতা জাকির হোসেন, আব্দুর রাজ্জাক চয়ন, জুনায়েদ, ইমন মহিউদ্দিন, কৃষকলীগের ইব্রাহিম কে রাজা, ছাত্রলীগের ওয়াসিম ওয়াজেদ, মিনহাজুর রহমানসহ অনেকে।

১৯৪৪ সালের ১ জানুয়ারি কিশোরগঞ্জের মিটামইন উপজেলার কামালপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন আব্দুল হামিদ চৌধুরী। আবদুল হামিদের রাজনৈতিক জীবন শুরু হয় ১৯৫৯ সালে ছাত্রলীগে যোগ দেওয়ার মধ্য দিয়ে। ১৯৬১ সালে কলেজের ছাত্র থাকা অবস্থাতেই তিনি যোগ দেন আইয়ুববিরোধী আন্দোলনে। তখন তাকে কারাগারেও যেতে হয়েছিল।

১৯৭০ সালের নির্বাচনে পাকিস্তান জাতীয় পরিষদের সর্বকনিষ্ঠ সদস্য নির্বাচিত হন আবদুল হামিদ। মুক্তিযুদ্ধে অবদানের স্বীকৃতি হিসাবে ২০১৪ সালে স্বাধীনতা পদকে ভূষিত হন তিনি। জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার, স্পিকার এবং সবশেষ ২০১৩ সালের ২৪ এপ্রিল রাষ্ট্রপতি কার্যালয়ের দায়িত্বভার গ্রহণ করেন আব্দুল হামিদ।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/পিএম

উপরে