আপডেট : ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ ১১:৩৬
হতে পারে মাঝারি থেকে ভারী বজ্রবৃষ্টি

ফসলের ব্যাপক ক্ষতির আশংকা

বিডিটাইমস ডেস্ক
ফসলের ব্যাপক ক্ষতির আশংকা

আজ ২৪ ফেব্রুয়ারি বুধবার ও আগামীকাল বৃহস্পতিবার দেশের অধিকাংশ স্থানে অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ মাঝারি ধরনের বজ্রবৃষ্টি হতে পারে। এতে কৃষিতে ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কা করছেন সংশ্লিষ্টরা।
 বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদফতের সাত দিনের কৃষি আবহাওয়া পূর্বাভাস পর্যালোচনা করে এসব তথ্য জানা গেছে।
 বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদফতরের পরিচালক শামসুদ্দিন আহম্মেদ বলেন, দেশে এখন শুষ্ক আবহাওয়া বিরাজ করছে। তবে পূবালি লঘুর বর্ধিতাংশ পশ্চিমবঙ্গ হয়ে উত্তর বঙ্গোপসাগর পর্যন্ত বিস্তৃত হওয়ার কারণেই বৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া বুধ ও বৃহস্পতিবার মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে। এ সময় তিনি দেশের আবহাওয়া বিষয়ে বিস্তারিত জানার জন্য বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদফতরের ওয়েবসাইট www.bmd.gov.bd ভিজিট করার পরামর্শ দেন।
তিনি জানান, এই ওয়েবসাইটে আগামী তিন দিনের আবহাওয়ার পূর্বাভাস বিস্তারিত তথ্য আকারে দেওয়া থাকে।
কৃষি আবহাওয়া পূর্বাভাসে উল্লেখ করা হয়েছে, ২৪ ও ২৫ ফেব্রুয়ারি ঢাকা, চট্টগ্রাম, সিলেট, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের প্রায় সব স্থানে এবং রাজশাহী ও রংপুরের কিছু কিছু স্থানে অস্থায়ী দমকা বা ঝড়ো হাওয়াসহ মাঝারি থেকে মাঝারি ধরনের ভারী বৃষ্টি ও বজ্রবৃষ্টি হতে পারে। এক্ষেত্রে ২২ থেকে ৪৪ মিলিমিটার পর্যন্ত বৃষ্টিপাত হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এ সময়ে মধ্যরাত থেকে সকাল পর্যন্ত দেশের নদী অববাহিকায় হালকা কুয়াশা থাকতে পারে। এছাড়া প্রথম দিকে সারাদেশে দিন ও রাতের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস এবং শেষের দিকে দিন ও রাতের তাপমাত্রা সামান্য বৃদ্ধি পেতে পারে।
বাংলাদেশ আবহাওয়া অফিসের কৃষি আবহাওয়া বিভাগের আবহাওয়াবিদ মো. শামীম হাসান ভূঁইয়া জানান, ২৪ ও ২৫ ফেব্রুয়ারি মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টিপাত হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। এক্ষেত্রে কৃষির ওপর কিছুটা প্রভাব পড়ার আশঙ্কা রয়েছে। তবে এ বৃষ্টি কিছু ফসলের উপকারে আসবে, আবার এতে কিছু ফসলের ক্ষতি হবে। এ ব্যাপারে তিনি কৃষকদের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন।
এদিকে ভারি বৃষ্টিপাত হলে প্রায় ৭০ থেকে ৮০ শতাংশ ফসলের ওপর বিরূপ প্রভাব পড়ার আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন সংশ্লিষ্ট কৃষি কর্মকর্তারা।
কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতর (ডিইএ) এর একাধিক কর্মকর্তা বলেন, বৃষ্টি হলে দেরিতে লাগানো মশুর, গম, ধনেপাতা, জিরা, পিঁয়াজ, আলুসহ মাঠে থাকা প্রায় ৮০ শতাংশ ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হবে। এছাড়া আম, লিচুসহ যেসব ফলের মুকুল এসেছে সেগুলোর ওপরও প্রভাব পড়বে। তবে উপকার হবে বোরো ধানের।

উপরে