আপডেট : ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ ১৮:৪৩

মাহফুজ আনামসহ দুই সম্পাদককে একহাত নিলেন প্রধানমন্ত্রী

বিডিটাইমস ডেস্ক
মাহফুজ আনামসহ দুই সম্পাদককে একহাত নিলেন প্রধানমন্ত্রী

দেশে দুই শীর্ষস্থানীয় দৈনিকের দুই সম্পাদককে এক হাত নিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সম্প্রতি ইংরেজি দৈনিক দ্য ডেইলি স্টারের সম্পাদক মাহফুজ আনামের এক স্বীকারোক্তির পরিপ্রেক্ষিতে এমন কড়া মন্তব্য করেন প্রধানমন্ত্রী। তবে আরেক সম্পাদকের কথা উল্লেখ করলেও নাম প্রকাশ করেননি তিনি।

সেনানিয়ন্ত্রিত তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে সেনা গোয়েন্দা সংস্থা ডিজিএফআই-এর সরবরাহ করা সংবাদ প্রকাশের জেরে দেশের বিভিন্ন এলাকায় মাহফুজ আনামের বিরুদ্ধে করা মামলার সমালোচনাকারীদের সমালোচনা করেন প্রধানমন্ত্রী। মাহফুজ আনামকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, “কয়টা মামলাতেই ঘাবড়ে গেলেন?’

আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে এক আলোচনা সভায় প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, “এক-এগারোর পর দুজন সম্পাদক দেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করেছিলেন। তারা আমাকে ও খালেদা জিয়াকে মাইনাস করতে চেয়েছিল। আমাকে দুর্নীতিবাজ প্রমাণের চেষ্টা হিসেবে উদ্দেশ্যমূলকভাবে নানা সংবাদ প্রকাশ করেছিলেন তারা।”
 

ডেইলি স্টারের কথা উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, “ওই পত্রিকায় লেখা থাকে নির্ভীক সাংবাদিকতা করে তারা। তাহলে এক-এগারোর পর কীভাবে ডিজিএফআইয়ের কথা ছেপেছে তারা?”  চাপে পড়ে নয়, বরং উদ্দেশ্যমূলকভাবেই এসব সংবাদ ছাপা হয় বলেও অভিযোগ করেন প্রধানমন্ত্রী।


প্রধানমন্ত্রী বলেন, এক-এগারোর পর তাকে দুর্নীতিবাজ প্রমাণের চেষ্টা করেছে ওই সরকার। আর এতে সহযোগিতা করেন দুই সম্পাদক। এর অংশ হিসেবেই তার বিরুদ্ধে একের পর এক মিথ্যা সংবাদ ছাপা হয় বলে অভিযোগ করেন তিনি।

শেখ হাসিনা বলেন, “আমাকে দুর্নীতিবাজ বানানোর জন্য উঠে-পড়ে লেগেছিলেন তারা (দুই সম্পাদক)। আমি মাহফুজ আনামকে বলব, আপনি তো আপনিই, আপনার পিতৃতুল্য ওয়ার্ল্ড ব্যাংকও আমাকে দুর্নীতিবাজ প্রমাণের চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়েছে। পদ্মা সেতুতে দুর্নীতি বের করতে পারে নাই তারা।”
বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/আরকে 

উপরে