আপডেট : ২৫ মার্চ, ২০১৬ ১৭:১৬

গরু বিক্রি করায় পিটিয়ে-ফাঁস দিয়ে হত্যা

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক
গরু বিক্রি করায় পিটিয়ে-ফাঁস দিয়ে হত্যা

দুই গরু-মহিষ বিক্রেতাকে পিটিয়ে ও ফাঁসিতে ঝুলিয়ে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে। ভারতের ঝাড়খণ্ড প্রদেশের রাজধানী রাঁচি থেকে ১০০ কিলোমিটার দূরের লাতের বালুমঠ জঙ্গল থেকে গত শুক্রবার মুহম্মদ মজলুম ও আজাদ খান নামে দুই ব্যক্তির ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস জানায়, মুহম্মদ মজলুম এবং আজাদ খান দুজনেই পেশায় ছিলেন কসাই। আগে গরুর মাংস বিক্রি করলেও সাম্প্রতিক সময়ে কেবল গরু-মহিষ বিক্রি করেই সংসার চলত তাঁদের।

গত শুক্রবার গরু-মহিষ নিয়ে বিক্রির উদ্দেশে বাজারে যাওয়ার সময় তাঁরা নিখোঁজ হন। পরে গভীর রাতে পুলিশ তাঁদের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে।

এদিকে লাতের পুলিশ সুপার অনুপ বিরধারী জানান, ওই দুজনকে পিটিয়ে মারার আগে পিছমোড়া করে হাত-পা বাঁধা হয়। এমনকি তাঁরা যাতে চিৎকার করতে না পারেন, সে জন্য মুখও কাপড় দিয়ে ভালো করে বেঁধে নেওয়া হয়েছিল।

দুজনকে গণধোলাই দেওয়ার পর মৃত্যু নিশ্চিত করতে গলায় দড়ির ফাঁস দিয়ে গাছে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়। ঘটনাস্থল থেকে আটটি মহিষও উদ্ধার করেছে পুলিশ।

অনুপ বিরধারী আরো জানান, এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এদের মধ্যে অন্তত একজন মুহম্মদ মজলুমকে হত্যার হুমকি দিয়েছিলেন।

এদিকে ঝাড়খণ্ড বিকাশ মোর্চা স্থানীয় বিধায়ক প্রকাশ রামের দাবি, হিন্দু মৌলবাদীরাই এই কাণ্ড ঘটিয়েছে। যদিও পুলিশ এখনো নিশ্চিত করে কিছু বলতে পারেনি।

উপরে