আপডেট : ১৮ মার্চ, ২০১৬ ১৭:০৮

৩০০ বছরের পূরনো অংকের সমাধান করে জিতলেন ৫ কোটি ৬০ লাখ টাকা!

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক
৩০০ বছরের পূরনো অংকের সমাধান করে জিতলেন ৫ কোটি ৬০ লাখ টাকা!

১৯৩৭ সাল থেকে যে অংক কেউ সমাধান দিতে পারেনি সেই অংকের সমাধান দিলেন অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর অ্যান্ড্রু ওয়াইলস অংকটি সমাধান দিয়ে সম্মানের সাথে বিশাল পরিমানের টাকাও পেয়েছেন। পুরুষ্কার হিসেবে তাকে দেয়া হল ৭ লক্ষ ডলার যা বাংলাদেশী টাকায় প্রায় ৫ কোটি ৬০ লাক্ষ টাকা। এই সপ্তাহে ব্রিটিশ প্রফেশর এন্ডু (৬২) পেলেন বিশ্বের মর্যাদাপূর্ণ ‘আবেল পুরুস্কার’ যা কিনা গনিতের নোবেল পুরস্কার হিসাবে পরিচিত। ফ্রান্সের বিখ্যাত গনিতবীদ পিয়ের দ্য ফার্মার ‘ফের্মারট লাস্ট থিয়োরিয়াম’ সমীকরনটি ১৬৩৭ সালে আবিস্কারে পর থেকে এখন পর্যন্ত কেউ সমাধান দিতে পারে নি। ঠিক ৩০০ বছর পর সেই সামধান দিয়েছেন প্রফেসর এন্ডু। ১৯৯০ সালে অক্সফোর্ড প্রফেসর এন্ডু এই সমীকরনের সমাধান খুজে পেয়েছিলেন।

প্রফেসর এন্ডু বলেন, ‘এটা সত্যির আমার জন্য অনেক সম্মানের। ফার্মারের সমীকরণের প্রতি ছোটবেলা থেকেই আবেগ ছিল, এবং এটি সমাধানের পর এক দুর্বার অনুভূতি পেয়েছি। আমি যখন প্রথম এই সমীকণটি পড়লাম তখন থেকেই এটি সমাধাণের চিন্তা মাথায় ঘুরতে থাকে। আমি আশা করি আমার এই সমীকণরটি তরুনদের অনেক অনুপ্রাণিত করবে এবং তারা আমার মত এমন পুরানো সমীকরণের সমাধান খুজে পাবে।’

প্রফেসর এন্ডুর সম্পর্কে আবেল কমিটি জানান, ‘আরো অনেকেই এই সমীকরণের সমাধান নিয়ে চেষ্টা করলেও এন্ডু একমাত্র ব্যাক্তি যে এর সঠিক সমাধান দিয়েছেন। যার কারনে তিনি আজকে আন্তর্জাতিক পত্রিকার প্রধান শিরোনাম’     

দীর্ঘ সাত বছর নিবিড়ভাবে কাজ করার পর এন্ডু এই জটিল সমীকরণের সমাধান খুজে পেলেন। তিনি সমীকরণের সমাধান দিয়ে বর্তমান বিশ্বের জন্য এক নতুন দরজা খুলে দিলেন।   

 

উপরে