আপডেট : ১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ ১১:৪১

হিজাব পরা বার্বি ডল নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড়

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
হিজাব পরা বার্বি ডল নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড়

হিজাব পরিহিত বার্বি ডলের ছবি নিয়ে তর্ক-বিতর্কের ঝড় উঠেছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

ইনস্টাগ্রামে এই ছবি আপলোড করেছিলেন হানিফা এডাম। তার পর থেকে প্রশংসার পাশাপাশি নানা ধরণের হুমকিও পাচ্ছেন তিনি।

হানিফা এডাম তার এই হিজাব পরা বার্বির নাম দিয়েছেন 'হিজারবি'। নাইজেরিয়ার ২৪ বছর বয়সী তরুণী হানিফা ফার্মাকোলজির ছাত্রী। হঠাৎ করেই এই আইডিয়াটা আসে তার মাথায়। হানিফা একজন মুসলিম এবং তিনি নিজেও হিজাব পরেন।

"হিজাব পরা কোন পুতুল আমি কখনো দেখিনি। কোন কিছু না ভেবেই আমি হিজাব পরা পুতুলের ছবি ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করি। আমি ভাবিনি যে এই ছবি এতটা সাড়া ফেলে দেবে।"

প্লাস্টিকের পুতুলহরেক রকম হিজাব পরিয়ে ছবি তুলে ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দিতে থাকলেন হানিফা। বিপুল সাড়া পাওয়া গেল। তার ইনস্টাগ্রাম একাউন্টের ফলোয়ার এখন তিরিশ হাজার ছাড়িয়ে গেছে।

হিজারবির জন্য হরেক রকম পোশাক হানিফা নিজেই তৈরি করেন। তবে এরকম মিনিয়েচার পোশাক তৈরির অনেক ঝক্কি।

তবে সবাই যে হানিফার এই হিজারবি পছন্দ করেছে তা নয়। নানা রকম ইসলাম বিদ্বেষী মন্তব্যেরও টার্গেট হয়েছেন তিনি।

"অনেকে আমার হিজারবি নিয়ে নানা রকমের বিদ্রুপ করছিল। কেউ কেউ বলছিল এই হিজারবির পোশাকের আড়ালে বোমা লুকোনো আছে।"।

হিজাব পরা মুসলিম নারীদের ব্যাপারে যে ভুল ধারণা প্রচলিত আছে, হিজাবি সেটা পাল্টে দেবে বলে আশা করেন হানিফা।

"হিজাব কোন নিপীড়নের প্রতীক নয়। এটি বরং মুক্তির প্রতীক।"

উল্লেখ্য পশ্চিমা বিশ্বের নামকরা অনেক ফ্যাশন ব্রান্ড এখন হিজাব বিক্রি করছে। এইচএন্ডএম এবং ডলচে গাবানা সম্প্রতি তাদের স্টোরে হিজাব বিক্রি শুরু করে।

হানিফার ভবিষ্যত পরিকল্পনা হচ্ছে তার হিজারবি ব্রান্ডের নানা ফ্যাশন আইটেম তৈরি করে বাজারে ছাড়া।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/আরকে 

উপরে