আপডেট : ৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ ১০:৫৮

হিজাব পরার জেরে খ্রিষ্টান অধ্যাপকে ছাড়তে হল বিশ্ববিদ্যালয়

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
হিজাব পরার জেরে খ্রিষ্টান অধ্যাপকে ছাড়তে হল বিশ্ববিদ্যালয়

হিজাব পরা এবং মুসলমান-খ্রিস্টান একই খোদার সৃষ্টি বলে মন্তব্য করার জের ধরে আমেরিকার একটি খ্রিস্টান বিশ্ববিদ্যালয় ত্যাগে বাধ্য হয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়টির একজন অধ্যাপক।

লারিসিয়া হকিংন্স নামের ওই অধ্যাপক খ্রিষ্টান ধর্মাবলম্বী হলেও মুসলমানদের প্রতি সহানুভুতিশীল ছিলেন এবং নিজে হিজাব পরিধান করতেন।

বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের সঙ্গে গোপন সমঝোতার ভিত্তিতে রাষ্ট্র বিজ্ঞানের এই অধ্যাপক শিকাগোর হুইটন কলেজ ত্যাগ করেন বলে যৌথ বিবৃতিতে জানানো হয়েছে।

বিবৃতিতে গত নয় বছর এ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ড. হকিন্সের অবদানের কথা উল্লেখ করেছেন হুইটন কলেজের প্রেসিডেন্ট ফিলিপ গ্রাহাম রাইকিন।

ডিসেম্বরের ১০ তারিখে ফেসবুকে অধ্যাপক হকিংন্সের দেয়া একটি স্টাটাসকে কেন্দ্র করে এ বিতর্কের সূচনা হয়।

ফেসবুকের স্টাটাসে হকিন্স লিখেছিলেন, মুসলমানদের প্রতি সংহতি প্রকাশের অংশ হিসেবে তিনি হিজাব করতে শুরু করবেন। মুসলমানদের প্রতি সংহতি জানানোর জন্য সব ধর্মের নারীদের হিজাব করারও আহবান জানান তিনি। তিনি আরো লিখেন, খ্রিস্টান ও মুসলমানরা একই ইশ্বরের উপাসনা করছে।

তার ফেসবুক স্টাটাস আমেরিকায় মুসলমানদের পরিস্থিতি নিয়ে ব্যাপক বিতর্ক সৃষ্টি করে।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে