আপডেট : ৬ জানুয়ারী, ২০১৬ ২০:৩২

মাও’য়ের স্বর্ণখচিত বিশাল মূর্তি চীনা গ্রামে

বিডিটাইমস ডেস্ক
মাও’য়ের স্বর্ণখচিত বিশাল মূর্তি চীনা গ্রামে

চীনের অনন্য এক মানুষের নাম মাও সেতুং। মাও আধুনিক চীনের পথপ্রদর্শকই শুধু নন, বরং তার দেখানো পথ অনুসরণ করে চীনারা আজ বিশ্বের বুকে স্বমহিমায় দাঁড়িয়ে। তার প্রতি চীনাদের ভালোবাসা তাই অপরিসীম।

আর এই নিখাদ ভালোবাসা থেকেই মধ্য চীনের হেনান প্রদেশে থুংশু গ্রামের এক ক্ষেতের মধ্যে স্থাপন করা হচ্ছে কিংবদন্তি কমিউনিস্ট নেতা মাও’য়ের ৩৭ মিটার উঁচু বিশাল এক মূর্তি।

এ নিয়ে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে বিবিসি জানায়, মূর্তিটি বসাতে প্রায় ৩০ লাখ ইউয়ান বা চার লাখ ৬০ হাজার ডলার খরচ হচ্ছে। যার বেশিরভাগটাই যোগান দিচ্ছেন স্থানীয় এক ব্যবসায়ী।

তার সঙ্গে এই প্রকল্পের অর্থায়নে গ্রামবাসীরাও অংশ নিচ্ছেন বলে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম জানিয়েছে।

মূর্তিটি যে প্রদেশে বসানো হচ্ছে, তা মাওয়ের গৃহীত নীতির কারণে সৃষ্ট ১৯৫০ এর দশকের দুর্ভিক্ষের শিকার হয়, যেখানে লাখ লাখ মানুষের মৃত্যুও হয়েছিলো।

মূর্তি বসানোকে অপচয় ধরে নিয়ে অনলাইনে সমালোচনা হচ্ছে; স্থান নির্বাচনকেও ‘অবিবেচনাপ্রসূত’ বলছেন কেউ কেউ। তবে অনেকেই মূর্তি বসানোর পক্ষে দাঁড়িয়েছে।

দুর্ভিক্ষে এতগুলো মৃত্যুর জন্য মাওকে দায়ী করা হলেও কমিউনিস্টদের কাছে এখনো তিনি সম্মানিত। চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংও ‘বড় ব্যক্তিত্ব’ হিসেবে তার প্রশংসা করেছেন।

চীনের প্রেসিডেন্ট পদে ক্ষমতা কেন্দ্রীভূত করার প্রচেষ্টায় নিজের পক্ষে সমর্থন তৈরিতে মাওকে পূর্বসূরি মানলেও সাবেক এই নেতা ‘ভুল করেছেন’ বলে স্বীকার করেছেন শি।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/পিএম

উপরে