আপডেট : ৩১ ডিসেম্বর, ২০১৫ ১১:০২

রাশিয়ান যুদ্ধবিমানের সহায়তায় দক্ষিণাঞ্চল সিরিয়ান বাহিনীর দখলে

বিডিটাইমস ডেস্ক
রাশিয়ান যুদ্ধবিমানের সহায়তায় দক্ষিণাঞ্চল সিরিয়ান বাহিনীর দখলে

সিরিয়ার সেনাবাহিনী দেশটির দক্ষিণাঞ্চলীয় জর্ডান সীমান্তবর্তী ডেরা প্রদেশের শেখ মাসকিন এলাকায় বিদ্রোহীদের সঙ্গে তীব্র লড়াই শুরু করেছে। বুধবার রাশিয়ান যুদ্ধবিমানের সহায়তায় সেনাবাহিনী ওই এলাকায় নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা করতে সক্ষম হয়।

কাতার ভিত্তিক সংবাদ সংস্থা আল-জাজিরা তাদের এক প্রতিবেদনে জানায়, সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদের কাছে দেশটির দক্ষিনাঞ্চলে নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা করার জন্য শেখ মাসকিন এলাকাটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ছিলো।

সেপ্টেম্বরে রাশিয়ার সেনাবাহিনী আসাদের পক্ষ হয়ে যুদ্ধ শুরু করার পর প্রথমবারের মতো সিরিয়ান সেনাবাহিনী দক্ষিণাঞ্চলে অভিযান চালায়।

আবু আলা আল হোরানি নামে এক বিদ্রোহী কমান্ডার সংবাদ সংস্থা রয়টার্সকে জানান, রাশিয়ার সেনাবাহিনীর সহায়তা নিয়ে সিরিয়ান বাহিনী অগ্রসর হচ্ছে এবং একের পর এক আক্রমণ চালাচ্ছে। ২৪ ঘন্টায় তারা অন্তত ৪০ বার বিদ্রোহী আস্তানাগুলোকে লক্ষ করে আক্রমণ করে।

হোরানি ৫৪ জন সদস্য নিয়ে গঠিত আল ফালাক আল-আওয়ালের এক যোদ্ধা, যারা ফ্রি সিরিয়ান আর্মির হয়ে আসাদ বাহিনীর বিরুদ্ধে লড়াই করছে।

শেখ মাসকিন এলাকাটিই ছিলো সিরিয়ান সেনাবাহিনীর মূল লক্ষ্য। সেই লক্ষ্যের একেবারে দোরগোরায় রয়েছে তারা।

বৃটিশ ভিত্তিক মানবাধিকার সংস্থা হিউম্যান রাইটস জানায়, সংঘর্ষ এখনো চলছে। যুদ্ধে দুই পক্ষই ক্ষতির মুখোমুখি হয়েছে।

মস্কো দাবি করেছে, তারা মূলত আইএসের আস্তানাগুলোতে বোমা নিক্ষেপ করেছে। এ সপ্তাহের শুরুতেই রাশিয়ার বোমাবর্ষণে জাহরান আলাউস নামে একজন শীর্ষ বিদ্রোহী নেতা তার কয়েকজন অনুগতসহ নিহত হয়।

আগামী মার্চেই সিরিয়ার গৃহযুদ্ধের পাঁচবছর পূর্ণ হতে যাচ্ছে। প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদের বিরুদ্ধে এই ডেরা প্রদেশেই প্রথম বিদ্রোহ অনুষ্ঠিত হয়েছিলো, যা ক্রমেই সারা দেশে ছড়িয়ে পড়ে।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/পিএম

উপরে