আপডেট : ২৬ ডিসেম্বর, ২০১৫ ১৫:৩৯

‘যা ঘটে তা ভালোর জন্যই ঘটে’

বিডিটাইমস ডেস্ক
‘যা ঘটে তা ভালোর জন্যই ঘটে’

সৌন্দর্য প্রতিযোগিতা ‘মিস ইউনিভার্সের’ গ্র্যান্ড ফিনালে অনুষ্ঠানে উপস্থাপকের ভুলে ক্ষণিকের জন্য মিস ইউনিভার্স হিসেবে ঘোষিত হয়েছিল আরিয়াদনা গুতিরেজের নাম। কয়েক মিনিটের জন্য মাথায় উঠেছিল বিশ্বের সেরা সুন্দরীর মুকুট। পরে জানা যায় তিনি ফার্স্ট রানার আপ।

তারপর দিনই বিশ্বের বিভিন্ন গনমাধ্যমে শিরোনাম হয়ে যন আরিয়াদনা।

গত সপ্তাহে লাস ভেগাস ছেড়ে যাওয়ার আগে আরিয়াদনা কলম্বিয়ার আরসিএন মিডিয়া আউটলেটকে বলেন, “কলম্বিয়াবাসীদের ধন্যবাদ। আমি তাদের সমর্থন ও ভালবাসায় স্নাত। সত্যি বলছি আমিও তাদের অনেক ভালবাসি। যা ঘটে তা ভালোর জন্যই ঘটে আর আমি মিস ইউনিভার্সে আমার কাজে সন্তুষ্ট। এখন আমি অনেক শান্ত-সৈম্য আছি; আর কলম্বিয়ার জন্য আমিই মিস ইউনিভার্স।” 

 

এর আগে গত রোববার (২০ ডিসেম্বর) প্রতিযোগীতার উস্থাপক কৈাতুক আভিনেতা স্টিভ হারভে ভুল করে বিজয়ী হিসেবে আরিয়াদনার নাম ঘোষণা করে বসেন। যদিও তার সে ভুলের খেসারত দিয়েছেন আরিয়াদনা, ২৬ বছর বয়সী অভিনেত্রী ও মডেল ফিলিপাইনের পিয়া আলোনজো ওয়ারৎ্জব্যাচকে নিজ মাথা থেকে খুলে মুকুট পরিয়ে দিয়ে।

ইতোমধ্যে মিস কলম্বিয়ার ক্রাউন অপসারণ নিয়ে বেশ বিতর্কের তৈরি হয়েছে।

আরিয়াদনা বলেন, “সাবেক মিস ইউনিভার্স পওলিনা শুধু কলম্বিয়ার নয়, তিনি সারা বিশ্বের নারীদের জন্য গর্বের উৎস।”

যদিও ওই উপস্থাপক ও প্রতিযোগীতার আয়োজক সংস্থা তার কাছে অফিসিয়ালি ক্ষমা প্রার্থনা করেছে। তবে এখন আর এসবকিছু নিয়ে ভাবছেননা আরিয়াদনা।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/এইচজে/একে

 

উপরে