আপডেট : ১৬ মার্চ, ২০১৮ ২০:০৬

রোনালদো-নেইমার জুটি দেখতে অধীর রিয়াল!

অনলাইন ডেস্ক
রোনালদো-নেইমার জুটি দেখতে অধীর রিয়াল!

নেইমারের দলবদলের গুঞ্জন উড়িয়ে দিয়েছেন তার বাবা ও পিএসজি সভাপতি নাসের আল খেলাইফি। দুজনেই এক সুরে বলেছেন, নেইমার কোথাও যাবে না। পিএসজিতেই সুখে আছেন তিনি। থাকবেন পিএসজিতেই। কিন্তু তাদের সেই প্রকাশ বিবৃতিও গুঞ্জন থামাতে পারছে না। ভাটা ফেলতে পারেনি রিয়ালের আগ্রহেও। নেইমারের বাবা নেইমার সান্তোস সিনিয়র এবং পিএসজি সভাপতি নাসের আল খেলাইফির মুখে ‘নেইমার পিএসজিতেই থাকবেন’ শুনে রিয়াল বরং আরও বেশি মরিয়া।

নেইমারকে দলে টানতে রিয়াল এখন এতোটাই বেপরোয়া যে, গ্রীষ্মের দলবদল মৌসুম পর্যন্তও অপেক্ষা করতে রাজি নয়! আসন্ন বিশ্বকাপের আগের নেইমারের সঙ্গে চুক্তিটা সেরে ফেলতে চাইছে রিয়াল! স্পেনের জনপ্রিয় ক্রীড়া দৈনিক এএসের প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে এমনটাই। পত্রিকাটি পরিস্কার ভাষায় লিখেছে, বিশ্বকাপের আগের নেইমারের বিষয়টি নিশ্চিত করে ফেলতে চাইছে রিয়াল।

এএস-এর এই দাবিকে আরও জোরালো করছে রিয়াল শিবিরও। রিয়ালের একাধিক খেলোয়াড় নেইমারের সঙ্গে সম্ভাব্য চুক্তির বিষয়ে কথা বলেছেন গণমাধ্যমের সঙ্গে। গতকাল রেডিও মার্কার এল ট্রানসিস্টর অনুষ্ঠানে রিয়ালের ডিফেন্ডার ড্যানি কারবাহাল সরাসরিই বলেছেন, পারলে এখনই নেইমারের সঙ্গে চুক্তি করতেন তিনি!

আর নেইমারের স্বদেশি কাসেমিরো তো আঁকিয়ে ফেলেছেন রোনালদো-নেইমার জুটির ছবিটাই! বলেছেন, ‘আশা করি, এই মৌসুমেই সে রিয়ালে আসবে। আর আমি মনে করি, ক্রিস্তিয়ানোর সঙ্গে জুটি বেধে সে খুবই ভালো করবে।’

এর আগেও নেইমারের সঙ্গে সম্ভাব্য চুক্তির বিষয়ে কথা বলেছেন রিয়ালের খেলোয়াড়েরা। সার্জিও রামোস, কাসেমিরোরা প্রকাশেই আহ্বান জানিয়েছেন নেইমারকে,  ‘নেইমার এলে, তাকে বার্নাব্যুতে স্বাগতই জানানো হবে।’ কিন্তু আগের সেই কথা আর এবারের কথার মধ্যে পার্থক্য আছে।

নেইমারের বাবা ও পিএসজি সভাপতি নাসের আল খেলাইফির রীতিমতো সংবাদ সম্মেলন করে উড়িয়ে দিয়েছেন নেইমারকে নিয়ে উঠা সাম্প্রতিক গুঞ্জন। ঠিক তার পরপরই রিয়ালের দুদুজন খেলোয়াড়ের এক যুগে কথা বলাটা বিশেষ গুরুত্বই পাচ্ছে গণমাধ্যমসহ ফুটবলপ্রেমীদের কাছে। তাছাড়া রিয়ালের কর্তাদের কথা-বার্তাতেও নাকি মরিয়া ভাবটা বেশি।

মার্কার দাবি, শুধু কাসেমিরো নয়, রিয়ালের কর্তারাও এখন রোনালদো-নেইমারের সম্ভাব্য জুটির ছবিই আঁকছেন। নেইমারকে কেনার জন্য রিয়ালের পাকা পরিকল্পনার কথা এখন আর গোপন কিছু নয়। তবে এতোদিন গুঞ্জন ছিল, নেইমারকে কিনতে ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোকে বিক্রি করে দেবে রিয়াল। বেতন-ভাতা নিয়ে অসন্তুষ্ট রোনালদোই নাকি ক্লাব ছাড়তে প্রস্তুত। মৌসুম শেষেই তিনি নাকি পাড়ি জমাতে চান অন্য কোথাও। বারবার বেতন বাড়ানোর দাবিতে তিতিবিরক্ত রিয়ালের কর্তারাও নাকি রোনালদোর সেই ইচ্ছায় সায় দিয়েছিল।

কিন্তু এরই মধ্যে রোনালদো ও রিয়াল কর্তাদের অবস্থানটা পাল্টে গেছে। দুঃসময়কে পেছনে ফেলে ২০১৮ সালের শুরু থেকেই ফর্মে উড়ছেন রোনালদো। নতুন বছরে এরই মধ্যে রোনালদো ১২ ম্যাচে করেছেন ১৭ গোল। অবিশ্বা্স্য এই ফর্মের পুরস্কার হিসেবে রিয়ালের কর্তারা নাকি রোনালদোর বেতন বৃদ্ধির দাবি মানতে রাজি হয়েছে। রোনালদোও নাকি মনোভাব পাল্টে রিয়ালেই থেকে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

রোনালদো মনোভাব পাল্টালেও রিয়ালের নেইমারকে কেনার আগ্রহে ভাটা পড়েনি। রিয়াল বরং রোনালদোর সঙ্গে নেইমারের জুটির পরিকল্পনাই আঁটছে এখন। তাই নেইমারকে কেনার জন্য বিক্রি করে দিতে চাইছে করিম বেনজেমা, গ্যারেথ ও ইসকোকে।

রিয়ালের এই পরিকল্পনাকে আবার ভিত্তি দিচ্ছে ব্রাজিলিয়ান গণমাধ্যম ইউওএল। পত্রিকাটি দাবি করেছে, গত সপ্তাহেই ব্রাজিলে গিয়ে নেইমারের বাবার সঙ্গে চুক্তির বিষয়ে কথা বলেছেন রিয়াল সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজ। তাদের সেই গোপন বৈঠকের খবর পেয়েই পরে ব্রাজিলে উড়ে যান পিএসজি সভাপতি নাসের আল খেলাইফি। ইউওএল-এর দাবি, বৈঠকে পেরেজকে সবুজ সংকেতই দিয়েছেন নেইমারের বাবা!

নেইমারের বাবা নাকি পেরেজকে এমনও বলেছেন, পিএসজিকে রাজি করানো হয়তো কঠিন হবে। তবে তিনি চেষ্টা করবেন বুঝিয়ে-সুজিয়ে রাজি করাতে। নেইমারের বাবার সবুজ সংকেত পেয়েই রিয়াল বিশ্বকাপের আগেই চুক্তি সেরে ফেলার কথা ভাবছে।

তবে রোনালদো-নেইমারের সম্ভাব্য জুটির ছবি আঁকতে গিয়ে অন্য একটা বিষয়ও ভাবিয়ে তুলেছে রিয়াল কর্তাদের। পিএসজিতে নেইমার বর্তমানে বার্ষিক বেতন পান ৩৬ মিলিয়ন ইউরো। রিয়ালে এলেও তাকে এই পরিমাণ বেতনই দিতে হবে। এদিকে রোনালদোর বেতনও বৃদ্ধি করতে হচ্ছে। তাই নেইমারকে আনলে, দুজনের পেছনে শুধু বেতন হিসেবেই বছর অন্তত ৬০ মিলিয়ন ইউরো ঢালতে হবে রিয়ালকে। যা ক্লাবের জন্য ‘বোঝা’ হবে বলেই ধারণা করা হচ্ছে।

তবে এই খরচ বৃদ্ধির ভাবনাও নাকি রিয়াল কর্তাদের মন থেকে নেইমার-আকাঙ্খায় ভাটা ফেলতে পারছে না!

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে