আপডেট : ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ২১:৩৪

যে ৬ রেকর্ড কখনই ভাঙতে পারবেন না মেসি-রোনালদো!

অনলাইন ডেস্ক
যে ৬ রেকর্ড কখনই ভাঙতে পারবেন না মেসি-রোনালদো!

পুরোনো রেকর্ড ভেঙে নতুন করে গড়াটাকে ছেলে-খেলা বানিয়ে ফেলেছেন লিওনেল মেসি ও ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর। সময়ের সেরা দুই ফুটবলার প্রতিনিয়তই পুরোনো রেকর্ডকে দুমড়ে মুষড়ে দিয়ে গড়ছেন নতুন করে। মাঠের অবিশ্বাস্য অর্জন-কীর্তিতে দুজনেই জায়গা করে নিয়েছেন সর্বকালের সেরাদের ছোট্ট তালিকায়। ক্যারিয়ারে ঠিক কতগুলো রেকর্ডের মালিক হয়েছেন, তার আক্ষরিক হিসাব হয়তো তারা নিজেররাও রাখেন না। তবে মেসি-রোনালদো যত রেকর্ডই গড়ুন, বিশ্ব ফুটবল ইতিহাসে এমন ৬টি রেকর্ড আছে, তারা তার ধারের কাছেও যেতে পারেননি। ক্যারিয়ারে কখনো ভাঙতে পারবেন বলেও মনে হয় না!

রেকর্ড ভাঙ্গা গড়ার খেলায় মেতে উঠা মেসি-রোনালদোর কাছেও অস্পর্শনীয়! সেই অনন্য রেকর্ড ৬টি কি? পরিসংখ্যানের পাতা ঘেটে গেমসইয়েটু’র তুলে আনা সেই রেকর্ড ৬টি পরিবর্তন পাঠকদের জন্য সবিস্তার তুলে ধরা হলো।

১. ক্যারিয়ারে সর্বোচ্চ হ্যাটট্রিক

স্প্যানিশ লা লিগায় এক মৌসুমে সর্বোচ্চ ৩টি হ্যাটট্রিকের রেকর্ডটি ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর দখলে। লা লিগার ইতিহাসে সর্বোচ্চ হ্যাটট্রিকের রেকর্ডটিও রিয়াল মাদ্রিদের পর্তুগিজ সুপার স্টারের দখলে। লা লিগায় মোট ৩২টি হ্যাটট্রিক করেছেন রোনালদো। মেসি ২৮টি। কিন্তু হিসাবটা যদি হয় সব দেশের সর্বকালের সব ফুটবলারদের, ক্যারিয়ারে মোট হ্যাটট্রিক সংখ্যায় রোনালদো-মেসি অনেক অনেক পিছিয়ে। ক্লাব-জাতীয় দলের জার্সি গায়ে সব ধরনের প্রতিযোগিতা মিলিয়ে রোনালদো এ পর্যন্ত হ্যাটট্রিক করেছেন মোট ৪৯টি। মেসি ৪৪টি। সেখানে একক কোনো খেলোয়াড়ের সর্বোচ্চ হ্যাটট্রিকের রেকর্ডটি ৯২ হ্যাটট্রিকের! অবিশ্বাস্য এই রেকর্ডটির মালিক ব্রাজিল কিংবদন্তি পেলে।

হ্যাঁ, ব্রাজিলকে তিনটি বিশ্বকাপ উপহার দেওয়া পেলে ক্যারিয়ারে মোট ৯২টি হ্যাটট্রিক করেছেন। রেকর্ডটা ভেঙে দেওয়া দূরের কথা, ছুঁয়ে ফেলতেই রোনালদোকে করতে হবে আরও ৪৩টি হ্যাটট্রিক। মেসিকে করতে হবে আরও ৪৮টি হ্যাটট্রিক। বর্তমানে রোনালদোর বয়স ৩৩, ৩০ পেরিয়ে ৩১-এ পা দিয়েছেন মেসি। কাজেই নিশ্চিত করেই বলা যায়, পেলের সর্বোচ্চ হ্যাটট্রিকটি কখনোই ভাঙতে পারবেন না রোনালদো-মেসি!

২. লিগে এক মৌসুমে সর্বোচ্চ গোল

লা লিগার ইতিহাসে এক মৌসুমে সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ডটি মেসির দখলে। বার্সেলোনার আর্জেন্টাইন সুপারস্টার ২০১১-১২ মৌসুমে করেছিলেন সর্বোচ্চ ৫০ গোল। লিগে এক মৌসুমে রোনালদোর সর্বোচ্চ গোল ৪৮টি। কিন্তু ইতিহাস বলছে, সব দেশের সব লিগ মিলিয়ে এক মৌসুমে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ডটি ৬৬ গোলের। হাঙ্গেরিয়ান কিংবদন্তি ফেরেঙ্ক ডিক হাঙ্গেরিয়ান লিগে এই কীর্তিটা গড়েছিলেন ১৯৪৫-৪৬ মৌসুমে। ডিকের এই কীর্তিও মেসি-রোনালদো কখনো ছুঁতে পারবেন বলে মনে হয় না।

৩. ক্যারিয়ারে সর্বোচ্চ লিগ গোল

সর্বোচ্চ হ্যাটট্রিকের মতো ক্যারিয়ারে সর্বোচ্চ লিগ গোলের রেকর্ডটিও পেলের দখলে। ব্রাজিলিয়ান ক্লাব সান্তোস ও যুক্তরাষ্ট্রের ক্লাব নিউইয়র্ক কসমসের হয়ে লিগে মোট ৬৫০ গোল করেছেন পেলে। লিগে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৬০৭ গোল করেছেন চেক প্রজাতন্ত্রের প্রয়াত কিংবদন্তি যোসেফ বিকান। সেই ৬০৭ গোল তিনি করেছিলেন মাত্র ৪০৬ ম্যাচেই! ভাবা যায়! যাই হোক, ব্রাজিল কিংবদন্তি পেলের এই সর্বোচ্চ লিগ গোলের রেকর্ডটিও মেসি-রোনালদো কখনো ভাঙতে পারবেন না। কারণ, মেসি এ পর্যন্ত লিগে গোল করেছেন ৩৬৯টি। সব ক্লাব মিলিয়ে লিগে রোনালদোর ৩৮৪টি। মানে পেলের রেকর্ড ছুঁতেই রোনালদোকে লিগে করতে হবে আরও ২৬৬ গোল। মেসির করতে হবে ২৮১টি।

৪. লা লিগার এক ম্যাচে সর্বোচ্চ গোল

লা লিগার ইতিহাসে সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ডটি নিজের করে নিয়েছেন মেসি। বার্সেলোনার হয়ে তিনি লিগে ৪০৩ ম্যাচে করেছেন ৩৬৯ গোল। ২৮৪ ম্যাচে ২৯৭ গোল নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রোনালদো। কিন্তু লা লিগার ইতিহাসে এক ম্যাচে সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ডটি থেকে এখনো অনেক দূরে তারা। লা লিগায় এক ম্যাচে সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ডটি স্প্যানিশ কিংবদন্তি লাজলো কুবালার দখলে। এক ম্যাচেই তিনি করেছিলেন ৭ গোল। সেটা তিনি করেছিলেন মেসির বার্সেলোনার জার্সি গায়েই, ১৯৫২ সালে স্পোর্টিং গিজনের বিপক্ষে। কুবালার এই কীর্তিও মেসি-রোনালদো কোনো দিন ছুঁতে পারবেন কিনা সন্দেহ।

৫. বিশ্বকাপে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ গোল

গোল করাটা মেসি-রোনালদোর জন্য ডালভাত! মাঠে নামলেই গোলের বান বয়ে দেন তারা। কিন্তু বিশ্বকাপ মঞ্চ হলেই কোন অপশক্তি এসে যেন ভর করে তাদের কাঁধে। গত এক দশক ধরে বিশ্ব ফুটবলকে শাসন করা মেসি-রোনালদো বিশ্বকাপের ম্যাচ হলেই যেন করা ভুলে যান! দুজনেই এ পর্যন্ত অংশ নিয়েছেন ৩টি করে বিশ্বকাপে। সেই তিন আসর মিলে মেসি গোল করেছেন মাত্র ৫টি। রোনালদো আরও কম, মাত্র ৩টি! তাদের দুজনের পক্ষেই তাই বিশ্বকাপের সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত গোলের রেকর্ডটাকে নিজের করার সম্ভাবনা ক্ষীণ। কারণ, বিশ্বকাপের সর্বোচ্চ গোলের রেকর্ডটা ১৬ গোলের। যে রেকর্ডের মালিক জার্মানির সাবেক ফরোয়ার্ড মিরোস্লাভ ক্লোসা। রেকর্ডটা ছুঁতে মেসিকে করতে হবে আরও ১১ গোল, রোনালদোকে করতে হবে ১৩টি।

৬. ইউরোপিয়ান কাপের ফাইনালে সর্বোচ্চ গোল

ইউরোপিয়ানের কাপের (বর্তমান নাম উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ) ফাইনালে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত গোলের রেকর্ডটার মালিক আলফ্রেডো ডি স্টেফানো। স্প্যানিশ-আর্জেন্টাইন এই কিংবদন্তি রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে ইউরোপিয়ান কাপে টানা ৫টি ফাইনালে খেলেছেন। ১৯৫৫-১৯৬০, টানা ৫ বারই রিয়ালকে শিরোপা উপহার দেওয়ার পথে স্টেফানো ফাইনালে মোট গোল করেছেন ৭টি। যা এখনো রোনালদো-মেসিদের ধরা ছোঁয়ার অনেক বাইরে। রোনালদো অবশ্য মাত্র ৩ গোল পেছনে। ৪টি চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শিরোপা জেতা রোনালদো ফাইনালে মোট গোল করেছেন ৪টি। সমান সংখ্যক ফাইনালে খেলে মেসি গোল করেছেন মাত্র ২টি।

ফলে মেসি তো বটেই, রোনালদোও স্টেফানোর রেকর্ডটা ভাঙার সাহস পান কিনা সন্দেহ।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে