আপডেট : ১৯ জানুয়ারী, ২০১৮ ১৬:০৫

পিএসজির ‘সোনার খাঁচায়’ বন্দী নেইমার!

অনলাইন ডেস্ক
পিএসজির ‘সোনার খাঁচায়’ বন্দী নেইমার!

নেইমারকে দলে টানার সব পরিকল্পনা-প্রস্তুতি সেরে ফেলেছে রিয়াল মাদ্রিদ। এখন শুধু ঝাপিয়ে পড়ার অপেক্ষা। কিন্তু রিয়ালের সব পরিকল্পনা-প্রস্তুতি শেষ পর্যন্ত ভেস্তে যাবে বলেই মনে হচ্ছে। নেইমারের সঙ্গে চুক্তির আশা শিগগিরই তাদের পূরণ হবে না!

ডোনাতো ডি ক্যাম্পলি অন্তত বললেন সেটাই। ইতালিয়ান এই ভদ্রলোক স্পষ্টই জানিয়ে দিলেন, নেইমার পিএসজির ‘সোনালী জেলখানায়’ বন্দী। শিগগিরই তাকে কোন ক্লাব নিতে পারবে না। নেইমার চাইলেও পিএসজির সুরক্ষিত ‘সোনার খাঁচা’ থেকে বের হতে পারবেন না!

তা কে এই ডোনাতো ডি ক্যাম্পলি? যিনি নেইমার-পিএসজির অন্দরের খবর রাখেন? তিনিও পিএসজির বাইরেরই একজন। তবে পেশাদারিত্বের কারণে পিএসজির সঙ্গে একটা যোগসাজশ তার আছে। সেই পেশাদারিত্বের খাতিরেই ইতালিয়ান ভদ্রলোকের দেখা হয়ে গেছে পিএসজির ‘সোনার জেলখানা’ কতটা সুরক্ষিত। সেই জেলের শিকল ভেঙ্গে কাউকে বের করে আনা অসম্ভব!

তিনি নিজেও একজনকে বের করার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়েছেন। পিএসজির ‘খাঁচা’ থেকে বেরুতে ব্যর্থ হয়েছেন তার মক্কেল মার্কো ভেরাত্তিও। ব্যর্থ হয়েছে বার্সেলোনার মতো বিশ্বের প্রভাবশালী ক্লাবও। পরবর্তীতে যে বার্সা উসমান ডেম্বেলে, ফিলিপে কুতিনহোর মতো খেলোয়াড়ের সঙ্গে চুক্তি করে বর্তমান দলবদল বাজারের বড় নিয়ামক হয়ে উঠেছে।

ক্যাম্পলির পরিচয় এতক্ষণে আপনার কাছে পরিস্কার হয়ে যাওয়ারই কথা। ভদ্রলোক পিএসজির ইতালিয়ান মিডফিল্ডার মার্কো ভেরাত্তির এজেন্ট। গত গ্রীষ্মের দলবদলের শুরুর দিকেই ভেরাত্তির দিকে হাত বাড়িয়েছিল বার্সেলোনা। ইতালিয়ান মিডফিল্ডারের জন্য বার্সেলোনা ‘১০০ মিলিয়ন ইউরো’র লোভনীয় টোপও দিয়েছিল। ক্যাম্পলিও খুব করে চেয়েছিলেন ভেরাত্তিকে পিএসজির কয়েদ থেকে ন্যু-ক্যাম্পে নিয়ে আসতে। বার্সায় যোগ দিয়ে মরিয়া ছিলেন ভেরাত্তিও। ক্লাব পিএসজির বিরুদ্ধে বিদ্রোহ পর্যন্ত ঘোষণা করেছিলেন।

কিন্তু বার্সা, ক্যাম্পলি, ভেরাত্তি-সবার চেষ্টা-চাওয়াকেই ব্যর্থ করে দেয় পিএসজি। ফরাসি ক্লাবটি বুঝিয়ে-সুজিয়ে ঠিকই ভেরাত্তিকে দলে ধরে রেখেছে। ভেরাত্তিকে ধরে রাখতে যারা এমন মরিয়া, সেই পিএসজি ‘সোনার ডিম পাড়া হাস’ নেইমারকে ধরে রাখতে আরও বেশি মরিয়া থাকবে, সেটা অনুমান করাই যায়। নিজের সেই বাস্তব অভিজ্ঞতা থেকেই ক্যাম্পলির ধারণা পাক্কা, শিগগিরই নেইমারকে পিএসজি থেকে কেউ বের করতে পারবে না।

ইতালিয়ান ক্রীড়া দৈনিক ‘তাত্তো স্পোর্ত’কে ক্যাম্পলি স্পষ্টই বলেছেন, ‘কোনো ক্লাবই তাকে (নেইমার) সেখান থেকে বের করতে পারবে না। আর্থিক দিক থেকে এই ক্লাবটি (পিএসজি) বিশ্বের যেকোনো ক্লাবের চেয়ে বেশি প্রভাবশালী। খেলোয়াড়েরা তাদের সোনালী জেলখানায় বন্দী। তারা কাউকেই ছেড়ে দিতে চাইবে না।’

ভেরাত্তিকে বার্সেলোনায় নেওয়ার চেষ্টা করতে গিয়ে বাজে অভিজ্ঞতা হয়েছে বলেই জানিয়েছেন ক্যাম্পলি, ‘ভেরাত্তি ও পিএসজির বিষয়টি নিয়ে জীবনের সবচেয়ে কুৎসিত অভিজ্ঞতাই হয়েছে আমার।’

ক্যাম্পলির এই মন্তব্য রিয়াল মাদ্রিদ সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজের নেইমার-আগ্রহে ভাটা ফেলবে কি?

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে