আপডেট : ১৮ ডিসেম্বর, ২০১৫ ১৪:০৩

বিয়ের পাঁচ মাসেই স্ত্রী শয্যায়, ৫৬ বছর ধরে প্রাণ ঢালছেন বৃদ্ধ

বিডিটাইমস ডেস্ক
বিয়ের পাঁচ মাসেই স্ত্রী শয্যায়, ৫৬ বছর ধরে প্রাণ ঢালছেন বৃদ্ধ

‘ঝউ ইউআই’ বিয়ে করেন ২০ বছর বয়সে। বিয়ের ঠিক কিছুদিন পর অজানা এক রোগ তাঁর চলাফেরার ক্ষমতা কেড়ে নিয়েছিল। বিছানায় শুয়ে শুয়ে স্রেফ মৃত্যুর অপেক্ষা করাই ছিল তাঁর নিয়তি।

এর পর সাড়ে পাঁচ দশকেরও বেশি সময় কেটে গেছে। নিথর দৃষ্টিতে ঝউ আজও তাকিয়ে থাকেন। চিনের শ্যানডং প্রদেশের ছোট্ট ঘরের বিছানায় পড়ে আছেন তিনি। ভালবাসার এক অনন্য পৃথিবীর বাসিন্দা তিনি। স্বামী দু’ইউয়ানফা তাঁর সেবা করে চলেছেন ৫৬ বছর ধরে।

খনির শ্রমিক ছিলেন দু। স্ত্রী পক্ষাঘাতগ্রস্ত হওয়ার পরেই চাকরি ছেড়ে দেন।তিনি বলেন, ‘‘চিরকাল ওর সেবা করব। ভালবেসে যাব এভাবেই”। বিয়ের ঠিক পাঁচ মাস পরই স্ত্রী শয্যাবরণ করেন । বন্ধুরা বলেছিলেন আর একটা বিয়ে করে নিতে। ‘দু ইউয়ানফা’ তা না করে চাকরিই ছেড়ে দিলেন।

কী না করেন দু! চাষ করা, রান্না করা, ওষুধ খাওয়ানো, স্ত্রীর জামা-কাপড় পাল্টে দেওয়া থেকে শুরু করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া, সব করেন একা হাতে। গত ৫৬ বছরে জীবনটা এইরকমই একটা বাঁধাধরা রুটিনে আটকে গেছে। তবু তিনি ঢেলে চলেছেন প্রাণসুধা। যে বন্ধুরা একসময়ে বিয়ে করতে বলেছিলেন, তাঁদের অনেকেই আজ নেই। কিন্তু যাওয়ার আগে সন্তানদের একটি নির্দেশ তাঁরা অনেকেই দিয়ে গিয়েছেন। দু আর ঝউয়ের যেন কোনও দিন কোনওরকম কষ্ট না হয়।

বিডিটাইমস৩৬৫.কম/জেএইচ/

উপরে