আপডেট : ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ ১৮:৪৫

সাংবাদিককে বেধড়ক পেটালো চবি ছাত্রলীগ

রবি হোসাইন অর্ক, চবি প্রতিনিধি
সাংবাদিককে বেধড়ক পেটালো চবি ছাত্রলীগ

‘দৈনিক পূর্বদেশ’ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) প্রতিনিধি মিজানুর রহমান মিজানকে বেধড়ক মারধর করেছে চবি শাখা ছাত্রলীগের বগি ভিত্তিক সংগঠন ‘সিক্সটি নাইন’ গ্রুপের দুজন কর্মী।এ সময় মিজান সাংবাদিক পরিচয় দিলে তাকেসহ সব সাংবাদিকের নলা কেটে ফেলারও হুমকি দেয়া হয়।

অভিযুক্তরা হলেন- সাইকোলজী ডিপার্টমেন্টের ২০১২-১৩ সেশনের সুরুজ মিয়া ও রবিন। তারা দু’জনই সদ্য স্থগিত করা বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি আলমগীর টিপুর অনুসারী। তবে  কয়েকদিন আগেই চবি ছাত্রলীগের কমিটি স্থগিত করেছে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ।

রোববার দুপুর দেড়টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয় অগ্রণী ব্যাংকের সামনে এ ঘটনা ঘটে। মারধরের শিকার মিজানুর রহমান মিজান বিশ্ববিদ্যালয় লোক প্রশাসন বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ের অগ্রণী ব্যাংকের সামনে মার্কেটিং বিভাগের পরীক্ষার রেজিস্ট্রেশনের টাকা জমা দিতে লাইনে দাঁড়িয়েছিলেন সাদ্দাম হোসেন। পিছনে ছিলেন চবি শাখা ছাত্রলীগের বগি ভিত্তিক সংগঠন ‘সিক্সটি নাইন’ গ্রুপের কয়েকজন কর্মী। এসময় ছাত্রলীগ কর্মীরা সাদ্দামকে তাদের আগে দিয়ে পিছনে দাঁড়াতে বললে তর্কাতর্কি হয়। পরে মিজানকে বিষয়টা জানানো হলে তিনি এসে সমাধান করার চেষ্টাকালে সাদ্দামকসহ মিজানকে মারধর করে ছাত্রলীগ কর্মীরা।

মারধরের শিকার হওয়া মিজানুর রহমান মিজান বিডিটাইমসকে বলেন, ‘সাদ্দাম সেই সকাল থেকে টাকা জমা দিতে লাইনে দাঁড়িয়েছিল। হঠাৎ করে সুরুজ মিয়া ও রবিন নামে ওই দুই ছাত্রলীগ কর্মী আমাকেসহ সাদ্দামকে গলাটিপে ধরে মারধর করে। এসময় সাংবাদিক পরিচয় দিলে, আমাকেসহ সব সাংবাদিকের নলা কেটে ফেলারও হুমকি দেন তারা ।’

এ ঘটনায় অভিযুক্ত ছাত্রলীগ কর্মীদের শাস্তির দাবিতে প্রক্টর বরাবর অভিযোগ দিয়েছেন মারধরের শিকার হওয়া মিজান ও সাদ্দাম।

বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর আনোয়ার চৌধুরী বিডিটাইমসকে বলেন, ‘এ ধরনের একটি অভিযোগ আমাদের কাছে দেয়া হয়েছে। তারা বিষয়টি দেখবেন বলে জানিয়েছেন।

 

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জেডএম

 

 

উপরে