আপডেট : ২৩ মার্চ, ২০১৬ ১৬:৪৫

আদালতে আত্মসমর্পণ ঈশানার

বিনোদন ডেস্ক
আদালতে আত্মসমর্পণ ঈশানার

দেশীয় টেলিভিশনের জনপ্রিয় মডেল ও অভিনেত্রী মৌনিতা খান ঈশানার বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করেছেন প্রযোজক মারুফ খান প্রেম। সম্প্রতি তাঁর বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি হয়েছে। বুধবার (২৩ মার্চ) আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করবেন এই অভিনেত্রী।

গত ৩ ফেব্রুয়ারি ঢাকার সিএমএম আদালতে বাদী প্রযোজক মারুফ খান প্রেম অভিনেত্রী ঈশানার বিরুদ্ধে দণ্ডবিধির ৫০০ ও ৫০১ ধারায় বর্ণিত অপরাধ সংঘটনের অভিযোগে এই মানহানির মামলাটি দায়ের করেন। গত মঙ্গলবার (২২ মার্চ) ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মেহের নিগার সূচনার ধার্য করা তারিখে আসামি ঈশানা আদালতে হাজির না হওয়ায় তার বিরুদ্ধে ওই গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি হয়েছে।

ঈশানার আদালতে হাজির হওয়ার তারিখ থাকলেও তাঁর কিছুই জানতেন না তিনি। পুরো ব্যাপারটিতে বেশ অবাকও হয়েছেন এই অভিনেত্রী। খুব শীঘ্রই অ্যাকশনে যাবেন তিনি।

এ প্রসঙ্গে ঈশানা বলেন, ‘খবরটা আজ দুপুরে এক সংবাদিকের কাছ থেকে শুনেছি। কিন্তু কোর্ট থেকে আমি কোন সমন পাইনি এখনো। আইনজীবীর সঙ্গে আলোচনা করেছি। তিনি জানিয়েছেন সমন না পা্ওয়া পর্যন্ত কোন অ্যাকশনে যেতে পারছিনা। খবরটা শোনার পরই বাবা কোর্টে গিয়েছিলেন। কিন্তু ওয়ার্কিং আওয়ার শেষ হওয়ায় আজকে আপিল করা সম্ভব হয়নি। কাল আপিল করবো।’

জানা গেছে বাংলাভিশনে প্রচারিত বাদীর প্রযোজিত মেগা ধারাবাহিক ‘সহযাত্রী’ নাটকটিতে আসামি ঈশানা অভিনেত্রী হিসেবে কাজ করছেন। গত ৭ জানুয়ারি উত্তরার একটি শুটিং হাউজে নাটকের শুটিং চলাকালে মেকআপ রুমে ঈশানা তাকে নিয়ে আজেবাজে কথাবার্তা বলেছেন বলে দাবি করেন প্রেম।

এ প্রসঙ্গে প্রেম বলেন, ‘ঈশানা আমাকে নিয়ে অনেক বাজে মন্তব্য করেছেন, যা সত্যি নয়। এ ছাড়া আমার নাটকে ঈশানা বিভিন্ন সময়ে শিডিউলও ফাঁসিয়েছেন। দুপুরে সেটে আসতেন আর কাউকে কিছু না বলে সন্ধ্যা ৭টায় চলে যেতেন। এভাবে কি শুটিং করা সম্ভব? তাই ৩ ফেব্রুয়ারি ঈশানার বিরুদ্ধে ৫০০/৫০১ ধারায় এক কোটি টাকার মানহানি মামলা করেছি আমি। আমার কাছে ঈশানার কথার রেকর্ডসহ অনেক প্রমাণ রয়েছে।’

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/এসএম

উপরে