আপডেট : ২৯ মার্চ, ২০১৬ ১৩:৫৯

আমার সন্তানকে আমি নিজ হাতে খুন করেছি, ও একটা অমানুষ!

অনলাইন ডেস্ক
আমার সন্তানকে আমি নিজ হাতে খুন করেছি, ও একটা অমানুষ!

মা ও ছোট ভাই এলোপাতাড়ি কুপিয়ে হত্যা করেছে এমরান মাতুব্বর (১৮) নামের এক মাদকাসক্ত যুবককে। মাদারীপুর সদর উপজেলার মোস্তফাপুর ইউনিয়নের চাপাতলি বড়মেহের গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। নিহতের বাবার নাম ইদ্রিস মাতুব্বর ।

সোমবার (২৮মার্চ) বিকেলে দুর্ব্যবহারের কারণে  মা মাকসুদা বেগম ও ছোট ভাই এনামুলের সঙ্গে বাকবিতণ্ডা হয় এমরানের। এর একপর্যায়ে মা ও এনামুল দা দিয়ে এলোপাতাড়ি কোপান এমরানকে।

এরপর প্রথমে তাঁকে মাদারীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখান থেকে নেওয়া হয় ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। আজ সকালে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনার পথে মৃত্যু হয় এমরানের। 
ঘটনার পর থেকে নিহতের ছোট ভাই এনামুল পলাতক  রয়েছেন।

পুলিশ বলছে, ছোট ভাই এনামুলই হত্যা করতে পারেন এমরানকে। তবে মা মাকসুদা বেগমের দাবি, তিনি নিজ হাতে ছেলেকে হত্যা করেছেন।

মাকসুদা বেগম বলেন, ‘আমার সন্তানকে আমি নিজ হাতে খুন করেছি। ও একটা অমানুষ। আমার সাথে খারাপ সম্পর্ক করতে চেষ্টা করছে। পরে আমি নিজেই ওকে দা দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করি। ’

বাবা ইদ্রিস মাতুব্বর জানান, ‘এমরান দীর্ঘদিন ধরে নেশা করে ওর মার সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করত।’

নিহতের চাচি হাসিনা বেগম বলেন, ‘কয়েকদিন আগে এমরান ওর বোনের সঙ্গেও খারাপ ব্যবহার করেছে।’

এ বিষয়ে জানতে চাইলে মাদারীপুর সদর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) শ্যামল বলেন, ‘এই ঘটনায় নিহতের মা ও বাবাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নেওয়া হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি, হয়তো নিহতের ছোট ভাই খুন করতে পারে। তবে আমরা জানতে পেরেছি নিহত এমরান ওর মার সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করত।’

এসআই আরো বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে দা জব্দ করেছে। এ বিষয়ে মামলা করার প্রস্তুতি চলছে।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে