আপডেট : ১০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ ১৮:১৬

ভগ্নিপতির ধর্ষণে গর্ভধারণ! মামলা করলেন সন্তান ছুড়ে ফেলা সেই কিশোরী

অনলাইন ডেস্ক
ভগ্নিপতির ধর্ষণে গর্ভধারণ! মামলা করলেন সন্তান ছুড়ে ফেলা সেই কিশোরী

পিতৃপরিচয় না থাকায় লোকলজ্জার ভয়ে নবজাতককে ছয় তলা থেকে ছুড়ে ফেলেছিলেন এক কিশোরী মা। গত ১ ফেব্রুয়ারি  রাজধানীর বেইলি রোডে এই ঘটনা ঘটে। জানা যায় ভগ্নিপতির ধর্ষণে গর্ভধারণ করেছিলেন বিউটি বেগম (১৬) নামের ওই কিশোরী।

রাজধানীর রমনা থানায় মঙ্গলবার (০৯ফেব্রুয়ারি) নবজাতককে নিক্ষেপকারী কিশোরী মা তার ভগ্নিপতি নীরবের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা করেছেন।মামলার তদন্ত কর্মকর্তা রমনা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) হুমায়ুন কবীর বুধবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
এজাহারে ওই মায়ের দাবি, ধর্ষণের শিকার হওয়ার পর তিনি গর্ভধারণ করেন। সামাজিক লজ্জার ভয়ে নবজাতককে বাড়ির বারান্দা থেকে ফেলে দিয়েছিলেন।
কিশোরী মা বর্তমানে তেজগাঁও ভিকটিম সাপোর্ট সেন্টারে চিকিৎসাধীন। নবজাতককে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের শিশু বিভাগে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।
রাজধানীর বেইলি রোডে প্রোপার্টি ম্যানশনের ষষ্ঠতলার বারান্দা থেকে গত ১ ফেব্রুয়ারি দুপুরে একদিন বয়সী নবজাতককে পলিথিনে মুড়িয়ে ছুড়ে ফেলে দেন তার জন্মদাত্রী মা।

দোতলার সানশেডে শিশুটি আছড়ে পড়লেও অলৌকিকভাবে প্রাণে বেঁচে যায়। লোকজন রক্তাক্ত নবজাতককে দেখতে পেয়ে পুলিশের সহায়তায় তাকে হাসপাতালে ভর্তি করে।

পরে পুলিশ তল্লাশি চালিয়ে ষষ্ঠতলার একটি ফ্ল্যাট থেকে রক্তাক্ত অবস্থায় এক কিশোরী গৃহকর্মীকে উদ্ধার করে।

ওই মা সেদিন সাংবাদিকদের জানিয়েছিলেন, ৯ মাস আগে তিনি কুমিল্লায় বোনের বাসায় বেড়াতে যান। সেখানে বোনজামাই তার সঙ্গে জোর করে শারীরিক সম্পর্ক গড়ে তোলে। এতে তিনি সন্তানসম্ভবা হয়ে পড়লে বোনের স্বামী তা অস্বীকার করে।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে