আপডেট : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ২০:২১

যেভাবে এশিয়া কাপের ফাইনালে খেলতে পারবে মাশরাফি-সাকিবরা

অনলাইন ডেস্ক
যেভাবে এশিয়া কাপের ফাইনালে খেলতে পারবে মাশরাফি-সাকিবরা

ভারতের কাছে সুপার ফোরের প্রথম ম্যাচে লজ্জাজনক হারের পর এশিয়া কাপের ফাইনালে যাওয়ার পথটা কঠিন হয়ে পড়েছে বাংলাদেশের জন্য। শনিবার বাজে ভাবে হেরে যাওয়ায় টেবিলের তলানিতে থাকার পাশাপাশি রান রেটও মাইনাসে চলে গিয়েছে মাশরাফিদের।

তবে এখনও ফাইনালে যাওয়ার সুযোগ রয়েছে তাদের জন্য। হাতে থাকা দুটি ম্যাচই জিততে হবে টাইগারদের। শুধু জিতলেই হবে না অন্তত একটি ম্যাচে জিততে হবে বড় ব্যবধানে। পাশাপাশি চেয়ে থাকতে হবে বাকি দলগুলোর ফলাফলের দিকে।

২ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের প্রথম এবং দ্বিতীয় স্থানে আছে ভারত এবং পাকিস্তান। বাংলাদেশের সমান ০ পয়েন্ট নিয়ে তিনে আছে আফগানরা।

বাংলাদেশের ক্ষেত্রে আবার সমীকরণটি সোজা। আফগানিস্তানের কাছে হেরে গেলে এশিয়া কাপ শেষ, জিতে গেলে পাকিস্তানকে হারাতেই হবে তাদের। তবে আফগানদের হারিয়ে আবার পাকিস্তানের কাছে হারলে এশিয়া কাপ শেষ হয়ে যাবে সাকিব-রিয়াদদের। ফাইনালে যেতে হলে দুই ম্যাচের দুটিতেই জয় ছাড়া বিকল্প নেই তাদের।

রবিবার ভারতের কাছে পাকিস্তান হেরে গেলে নিশ্চিত হয়ে যাবে রোহিত শর্মাদের ফাইনাল খেলা। আবার পাকিস্তান জিতলে তাদের ফাইনালের পথটা আরও সহজ হয়ে যাবে।

অন্যদিকে একই দিন যদি বাংলাদেশ আফগানদের কাছে হেরে যায় তাহলে ফাইনালে যাওয়ার স্বপ্ন শেষ হয়ে যাবে মাশরাফিদের। আর জিতে গেলে এখনও আশা বেঁচে থাকবে তাদের, সেক্ষেত্রে আফগানিস্তান ছিটকে যাবে এশিয়া কাপ থেকে। রবিবারের ফলাফলের উপর অনেক খানি নির্ভর করবে মঙ্গল এবং বুধবারের ম্যাচ দুটি।

পাকিস্তানের বিপক্ষে হেরে গেলে ভারতকে জিততেই হবে আফগানদের বিপক্ষে। আর পাকিস্তানের সাথে জয় পাওয়ার পর আফগানিস্তানের সাথে হেরে গেলেও ফাইনালে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে তাদের। তবে ভারত যদি তাদের পরের দুই ম্যাচে হেরে যায় তাহলে আর ফাইনালে উঠা হবেনা তাদের।

আবার বাংলাদেশকে হারিয়ে যদি আফগানিস্তান ভারতকে হারিয়ে দেয় তাহলে তাদেরও ফাইনালে যাওয়ার সম্ভাবনা আছে কিন্তু সেক্ষেত্রে রবিবার পাকিস্তানের হারতে হবে ভারতে কাছে।

অন্যদিকে পাকিস্তানের কাছে হারার পরও যদি ভারত আবার আফগানদের বিপক্ষে জয় পায় তাহলে ফাইনালের আশা টিকে থাকবে ভারতের আর বাদ পড়বে আফগানরা। আর বাংলাদেশ এবং ভারত দুই দলকেই হারিয়ে দিলে ফাইনালে চলে যাবে নবি-রশিদরা।

পাকিস্তানের জন্য সমীকরণটা আবার ভারতের মতই। পরের ম্যাচে ভারতের কাছে হারলে হারাতে হবে বাংলাদেশকে। আবার ভারতের সাথে জিতে বাংলাদেশের কাছে হারলেও সুযোগ থাকছে তাদের। আর দুটি ম্যাচেই হেরে গেলে দেশে ফিরতে হবে তাদের। আর দুই ম্যাচেই জয় পেলে সোজা ফাইনালে যাবে সরফরাজ আহমেদের দল।

এশিয়া কাপে ফাইনালে এখনও জায়গা করে নেয়ার সুযোগ রয়েছে চার দলেরই। যদিও বাকি তিন দলের থেকে রান রেটের বিচারে এগিয়ে আছে ভারত। বাংলাদেশের সামনেও সুযোগ রয়েছে পরের দুই ম্যাচে জিতে ফাইনালের আশা বাঁচিয়ে রাখার।

উল্লেখ্য যে, রবিবার সুপার ফোরে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচ দুবাইয়ে মুখোমুখি হবে ভারত এবং পাকিস্তান। একই দিন আবু ধাবিতে লড়বে বাংলাদেশ এবং আফগানিস্তান। আর গ্রুপের শেষ ম্যাচে মঙ্গলবার দুবাইতে ভারতের মুখোমুখি হবে আফগানিস্তান। পরের দিন বুধবার পাকিস্তানের বিপক্ষে লড়বে বাংলাদেশ। সবগুলো ম্যাচই শুরু হবে বাংলাদেশ সময় বিকাল সাড়ে পাঁচটায়।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে