আপডেট : ২৩ মে, ২০১৮ ১৪:৪৫

গ্রামের ক্রিকেট ম্যাচে থার্ড আম্পায়ারিং করলো আইসিসি!

অনলাইন ডেস্ক
গ্রামের ক্রিকেট ম্যাচে থার্ড আম্পায়ারিং করলো আইসিসি!

ব্যাতিক্রমী এক ঘটনার জন্ম দিল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইসিসি। গ্রামের ক্রিকেটের এক আউট নিয়ে সিদ্ধান্ত জানাতে অবতীর্ণ হলো থার্ড আম্পায়ারের ভূমিকায়। ঘটনাটা একটু খুলেই বলা যাক।  

পাকিস্তানের কোনো একটি অঞ্চলের এক গ্রামে ক্রিকেট ম্যাচ চলছে। ব্যাটসম্যান বোলিং করছে, বোলার বোলিং। তো বোলারের করা একটি ডেলিভারি ব্যাটসম্যান মারা চেস্টা করেও ব্যর্থ হলেন। ব্যাটসম্যানের কি দুর্ভাগ্য, সেই ডেলিভারী তো ব্যাটে ঠিকমত লাগলই না উল্টো বাতাসে বলটা ঘুরতে ঘুরতে ব্যাটসম্যানের দুই পায়ের মাঝ দিয়ে লাগল স্ট্যাম্পে। বোলার আউট ভেবে আনন্দে মাতোহারা। কিন্তু ব্যাটসম্যান তা মানতে নারাজ। সে কিছুতেই এটাকে আউট মানবেন না। ব্যাটসম্যাম এমনভাবে তর্কে জড়ালেন যে, ভাবখানা এমন এটা আবার আউট হয় নাকি।

আর মজার এই ঘটনাটি ভিডিও করে সরাসরি আইসিসি’র লাছে পাঠিয়ে দেন হামজা নামে এক ক্রিকেটপ্রেমী। সেই ভিডিওর দ্বারা আইসিসি’র কাছে হামজা জানতে চেয়েছিলেন, এটা আউট কি না? তখন হয়তো হামজা কল্পনাও করেননি আইসিসি তাঁর ভিডিওর জবাব দেবেন। কিন্তু অবাক করে দিয়ে আইসিসিও ফিরতি টুইট করেছে। 

সেই টুইটে বলা হয়, সকালে হামজা নামের এক ক্রিকেট ভক্ত আমাদের কাছে আজ এই ভিডিওটি পাঠিয়েছে, এটি আউট কিনা জানার জন্য। ব্যাটসম্যানটির জন্য দুর্ভাগ্য যে ৩২.১ নম্বর আইন নিশ্চিত করছে...এটা আউট!’

গ্রাম্য ক্রিকেটে প্রায়ই নানা রকম বিতর্ক লেগে থাকে। কিন্তু আইসিসি যে এটা নিয়ে মাথা ঘামাবে তা কেউই কল্পনা করতে পারেনি। তাই ভাইরাল হওয়া হামজার সেই ভিডিওতে আইসিসির ফিরতি টুইট তাই অনেক প্রশংসা কুড়িয়েছে।

উপরে