আপডেট : ১৮ মার্চ, ২০১৮ ১৫:৩০

টাইগারদের সমালোচনায় মৃত ডালমিয়াকেও ছাড়লো না লঙ্কানরা

অনলাইন ডেস্ক
টাইগারদের সমালোচনায় মৃত ডালমিয়াকেও ছাড়লো না লঙ্কানরা

বাংলাদেশ ক্রিকেট দল এই মুহূর্তে শ্রীলঙ্কান গণমাধ্যমের চক্ষুশূল। গতকাল থেকেই বিভিন্ন লঙ্কান গণমাধ্যমে শুক্রবারের ম্যাচ নিয়ে চলছে এন্তার সমালোচনা। সাকিব, মাহমুদউল্লাহ, নুরুল হাসানদের ‘আচরণ’কে তারা ক্রিকেটীয় চেতনার পরিপন্থী বলছে। ক্ষোভের তীব্রতা এতটাই যে বাংলাদেশি ক্রিকেটারদের সমালোচনা করতে গিয়ে জগমোহন ডালমিয়াকে পর্যন্ত আক্রমণ করে বসেছে তারা।

কলম্বো থেকে প্রকাশিত ইংরেজি দৈনিক দ্য আইল্যান্ডে প্রকাশিত প্রতিবেদন, ‘বাংলাদেশ গেট অ্যাওয়ে উইথ স্ল্যাপ অন দ্য রিস্ট’-এ ডালমিয়ার প্রসঙ্গটা এসেছে।

আইসিসির সাবেক সভাপতি জগমোহন ডালমিয়া বাংলাদেশের ক্রিকেটের উত্তরণে অনন্য–অসাধারণ ভূমিকা রেখেছিলেন। ১৯৯৭ সালে বাংলাদেশের ওয়ানডে ও ২০০০ সালে টেস্ট মর্যাদা পাওয়ার পেছনে এই কিংবদন্তিতুল্য ভারতীয় ক্রিকেট সংগঠকের ভূমিকা আজও অসীম কৃতজ্ঞতার সঙ্গে স্মরণ করে বাংলাদেশ।

বাংলাদেশের টেস্ট মর্যাদা প্রাপ্তিতে ডালমিয়ার পক্ষপাতের যে বড় ভূমিকা ছিল, এটা ক্রিকেট দুনিয়ায় অজানা নয়। সে কারণেই লঙ্কান দৈনিক দ্য আইল্যান্ডের ক্ষোভ ডালমিয়ার প্রতি। ব্যাপারটা অনেকটা এমন যে ডালমিয়া সাহায্য না করলেই তো বাংলাদেশের মতো একটি দেশ ক্রিকেট দুনিয়ায় জায়গা করে নিতে পারত না।

প্রতিবেদনটির একটি জায়গায় তারা লিখেছে, ‘ভারতীয় ক্রিকেটের বড় কর্তা, কলকাতার বিত্তশালী ব্যবসায়ী ক্রিকেটের জন্য অনেক কিছুই করেছেন। তবে তাঁর দু-একটি ভুলও আছে। এর একটি হচ্ছে বাংলাদেশকে টেস্ট মর্যাদা দেওয়া। ডালমিয়াকে এখন বাংলাদেশকে টেস্ট মর্যাদা দেওয়ার জন্য মরণোত্তর ১০০০ ডিমেরিট পয়েন্ট দেওয়া উচিত।’

শুক্রবার অনেক নাটকের পর বাংলাদেশের কাছে ২ উইকেটে হেরে যায় শ্রীলঙ্কা। শেষ ২ বলে ৬ রান বাকি থাকতে মাহমুদউল্লাহর বিশাল ছক্কা স্বপ্নভঙ্গ ঘটায় লঙ্কানদের। কলম্বোর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে মাহমুদউল্লাহর ছক্কার পর নেমে এসেছিল নিস্তব্ধতা। স্বাধীনতার ৭০ বছর পূর্তি উপলক্ষে আয়োজিত টুর্নামেন্টের ফাইনালে উঠতে না পারার ক্ষোভটা লঙ্কানরা যে এভাবে মেটানোর চেষ্টা করবে, সেটা বাংলাদেশ বোধ হয় কখনোই ভাবতে পারেনি।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে