আপডেট : ২১ মার্চ, ২০১৬ ২২:৪২

ওয়াটসনকে ফিরালেন মুশফিক

স্পোর্টস ডেস্ক
ওয়াটসনকে ফিরালেন মুশফিক

সোমবার বেঙ্গালুরুর এম চেন্নাস্বামী স্টেডিয়ামে তামিম ইকবালকে ছাড়াই খেলতে নামে বাংলাদেশ। বোলিং অ্যাকশনে নিষেধাজ্ঞা থাকায় ছিলেন না আরাফাত সানি ও তাসকিন আহমেদ। টসে হেরে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেটে ১৫৬ রান করে বাংলাদেশ। অস্ট্রেলিয়ার সামনে ১৫৭ রানের লক্ষ্যমাত্রা ছুড়ে দিয়েছে মাশরাফি বাহিনী। জয়ের লক্ষ্যে বোলিং করছেন মাশরাফি-সাকিবরা।

লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে অস্ট্রেলিয়ার দারুণ সূচনা এনে দেন ওসমান খাজা ও শেন ওয়াটসন। ছয় ওভার শেষ না হতেই অসিদের স্কোরশিট সমৃদ্ধ হয় রানের ফিফটিতে। ষষ্ঠতম ওভারে শেষ বলে বাংলাদেশ পেতে পারত একটি উইকেট। কাটার মুস্তাফিজের করা বলটি শূন্যে ভাসিয়ে দেন ওয়াটসন। মাশরাফি দুহাত বাড়িয়ে বলটি লুফে নেয়ার চেষ্টা করেন। ব্যর্থ চেষ্টায় মেতে ওঠেন মোহাম্মদ মিঠুনও। প্রচেষ্টার প্লাস-মাইনাসে যা হওয়ার হলো ঠিক তা-ই। ফল মাইনাস, অর্থাৎ ক্যাচটি হাতছাড়া হলো বাংলাদেশের। বেশ কয়েকটি ম্যাচের পর দলে ফিরে নিশ্চিত উইকেটটি হাতছাড়া হলো মুস্তাফিজের।

এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ৭ ওভারে ১ উইকেটে ৬১ রান।

এর আগে বাংলাদেশের পক্ষে সর্বোচ্চ ৪৯* রান করেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। ২৯ বলে ৭টি চার একটি ছক্কায় মূল্যবান এই ইনিংসটি সাজান তিনি। সাকিব আল হাসানের ব্যাট থেকে আসে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২৫ বলে তিনটি চার ও একটি ছক্কায় গড়া ৩৩ রান। 

২২ বলে একটি করে চার ছক্কায় ২৩ রান করেন মোহাম্মদ মিঠুন।  মুশফিকুর রহিম অপরাজিত ছিলেন ১১ বলে দুটি চারে ১৫ রান করে। আর ১৭ বলে দুটি চারে ১২ রান করে সাজঘরে ফেরেন সাব্বির। মাত্র ১ রান করেই প্যাভিলিয়নের পথ বেছে নেন সৌম্য সরকার।

৪ ওভারে ২৩ রান খরচায় ৩ উইকেট নিয়ে অস্ট্রেলিয়ার সেরা বোলার অ্যাডাম জাম্পা। বাকি উইকেট দুটি দখলে নেন শেন ওয়াটসন। ৪ ওভারে তিনি খরচ করেছেন ৩১ রান।

প্রসঙ্গত, দু’দলই নিজেদের প্রথম ম্যাচে হেরেছিল। অস্ট্রেলিয়া ৮ রানে পরাজয় বরণ করে নিউজিল্যান্ডের কাছে। কিউইদের ১৪২ রানের সহজ লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে অস্ট্রেলিয়া অলআউট হয় ১৩৪ রানে। আর বাংলাদেশ হেরে যায় পাকিস্তানের কাছে ৫৫ রানে। শহীদ আফ্রিদির দলের ছুড়ে দেয়া ২০১ রানের টার্গেটে বাংলাদেশের ইনিংস থামে ১৪৬ রানে।

 

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/আইএম

উপরে