আপডেট : ৪ মার্চ, ২০১৬ ২৩:০৮

শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে পাকিস্তানের সান্ত্বনার জয়

বিডিটাইমস ডেস্ক
শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে পাকিস্তানের সান্ত্বনার জয়

এশিয়া কাপের নিয়ম রক্ষার ম্যাচে শুক্রবার শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে জয় তুলে নিয়েছে পাকিস্তান। এশিয়া কাপের দশম ম্যাচে দিনেশ চান্দিমালের শ্রীলঙ্কাকে ৪ বল ও ৬ উইকেট হাতে রেখেই হারায় পাকিস্তান।

টস জিতে আগে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় পাকিস্তানের দলপতি শহীদ আফ্রিদি। মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে ম্যাচটি শুরু হয় বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায়।
নির্ধারিত ২০ ওভারে শ্রীলঙ্কা ৪ উইকেট হারিয়ে পাকিস্তানের সামনে ১৫১ রানের টার্গেট ছুঁড়ে দেয়। ওপেনার দিনেশ চান্দিমালের পর অর্ধশতক হাঁকান দিলশান। জবাবে, ১৯.২ ওভারে জয় তুলে নেয় ৪ উইকেট হারানো পাকিস্তান।
টস হেরে শ্রীলঙ্কার হয়ে ব্যাটিং উদ্বোধন করতে নামেন দিনেশ চান্দিমাল এবং দিলশান। পাকিস্তানের হয়ে বোলিং শুরু করেন মোহাম্মদ আমির।

ইনিংসের ১৫তম ওভারে ওয়াহাব রিয়াজ ফেরান ওপেনার চান্দিমালকে। শারজিল খানের তালুবন্দি হওয়ার আগে তিনি করেন ৫৮ রান। তার ৪৯ বলের ইনিংসে ছিল ৭টি চার আর একটি ছক্কার মার। আউট হওয়ার আগে দিলশানের সঙ্গে ১১০ রানের জুটি গড়েন চান্দিমাল।চান্দিমালের পর বিদায় নেন জয়সুরিয়া। শোয়েব মালিকের করা ইনিংসের ১৬তম ওভারের শেষ বলে শারজিল খানের হাতে ধরা পড়েন ৪ রান করা জয়সুরিয়া।

১৮তম ওভারে দুটি উইকেট তুলে নেন পেসার ইরফান মোহাম্মদ ইরফান। প্রথম বলে কাপুগেদারাকে (২) বোল্ড করেন ইরফান। সেই ওভারের তৃতীয় বলে বোল্ড করেন দাসুন শানাকাকে। দিলশান ৭৫ রান করে অপরাজিত থাকেন। ৫৬ বল মোকাবেলা করে ডানহাতি এ ওপেনার ১০টি চার আর একটি ছক্কা হাঁকান।

পাকিস্তানের হয়ে দুটি উইকেট নেন মোহাম্মদ ইরফান। উইকেট শূন্য থাকেন শহীদ আফ্রিদি, মোহাম্মদ আমির আর মোহাম্মদ নওয়াজ। শোয়েব মালিক ও ওয়াহাব রিয়াজ নেন একটি করে উইকেট।

১৫১ রানের টার্গেটে পাকিস্তানের হয়ে ব্যাটিং উদ্বোধন করতে নামেন শারজিল খান এবং মোহাম্মদ হাফিজ। ইনিংসের চতুর্থ ওভারে জয়সুরিয়া নিজের বলে নিজেই ক্যাচ নিয়ে ফিরিয়ে দেন ১৪ রান করা মোহাম্মদ হাফিজকে। অষ্টম ওভারে দিলশানের বলে কাপুগেদারার তালুবন্দি হন আরেক ওপেনার শারজিল খান। বিদায়ের আগে ২৪ বলে ৫টি চার আর একটি ছক্কায় তিনি ৩১ রান করেন।
এরপর স্কোরবোর্ডে আরও ৩৬ রান যোগ করেন সরফরাজ আহমেদ ও উমর আকমল। ইনিংসের ১৩তম ওভারে ফেরেন ২৭ বলে ছয়টি বাউন্ডারিতে ৩৮ রান করা সরফরাজ। তাকে এলবির ফাঁদে ফেলেন শ্রীবর্ধানে।

এরপর শোয়েব মালিক আর উমর আকমল ৫৬ রানের জুটি গড়েন। জয় থেকে মাত্র এক রান দূরে থাকতে ফেরেন ৪৮ রান করা উমর আকমল। তার ৩৭ বলের ইনিংসে ছিল চারটি চার আর দুটি ছক্কা। কুলাসেকারা ফেরান আকমলকে। শোয়েব মালিক ১৭ বলে ১৩ রান করে অপরাজিত থাকেন। ১৯.২ ওভারে জয় তুলে নেয় পাকিস্তান।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/আরকে

উপরে