আপডেট : ৪ মার্চ, ২০১৬ ১২:৫৬

সৌজন্য রক্ষার ম্যাচে ভারতের বাংলাদেশ-প্রস্তুতি

স্পোর্টস ডেস্ক
সৌজন্য রক্ষার ম্যাচে ভারতের বাংলাদেশ-প্রস্তুতি

এশিয়া কাপের প্রথম তিন ম্যাচে জয়ের পরেই ফাইনাল নিশ্চিত হয়ে গিয়েছিল ভারতের। আরব আমিরাতের বিপক্ষে গ্রুপ পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচটা ছিল শুধুই সৌজন্য রক্ষার। দারুণ ফর্মে থাকা ভারতের কাছে যে আমিরাত পাত্তা পাবে না, তা আগে থেকেই অনুমান করা যাচ্ছিল।

সেই অনুমান মিথ্যা প্রমাণিত করে ক্রিকেট বিশ্বকে চমকে দেওয়ার মতো নৈপুণ্য দেখাতে পারেননি আমিরাতের ক্রিকেটাররা। ৯ উইকেটের সহজ জয় দিয়ে অপরাজিত থেকেই ফাইনালে উঠেছে মহেন্দ্র সিং ধোনির দল।

এশিয়া কাপের নবম ম্যাচে মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে আমিরাতকে ৫৯ বল হাতে রেখে ৯ উইকেটের ব্যবধানে হারায় চলমান আসরের ফাইনালিস্ট টিম ইন্ডিয়া। আগামী ০৬ মার্চ মহেন্দ্র সিং ধোনির টিম ইন্ডিয়াকে ফাইনালের মঞ্চে লড়তে হবে টাইগারদের বিপক্ষে।

বৃহস্পতিবারের ম্যাচে একাদশে তিনটি পরিবর্তন আনে টিম ইন্ডিয়া। প্রথম ব্যাট করে ৯ উইকেটে মাত্র ৮১ রান তোলে আমিরাত। যা ছিল এবারের আসরে এখন পর্যন্ত সর্বনিম্ন স্কোর। জবাবে, মাত্র ৮২ রানের সহজ টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে ১০.১ ওভার ব্যাট করে রোহিত শর্মার একমাত্র উইকেট হারিয়ে জয়ের বন্দরে পৌঁছে ভারত।

এশিয়া কাপের আজকের ম্যাচে টসে জিতে ভারতের বিপক্ষে ব্যাটিংয়ে নেমে নির্ধারিত ওভার শেষে ৯ উইকেট হারিয়ে মাত্র ৮১ রান সংগ্রহ করেছে সংযুক্ত আরব আমিরাত।

খেলার শুরুতে দুই ওপেনার রোহান মুস্তফা (১১) ও স্বপ্নীল পাতিল ১ রান করে আউট হন। দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৪৩ রান করে ইনিংসের শেষ ওভারে রান আউটের ফাঁদে পড়েন সাইমান আনোয়ার। 

টি-টোয়েন্টির পাওয়ার প্লেতে ভারতের বিপক্ষে যুগ্নভাবে দ্বিতীয় সর্বনিম্ন স্কোর করেন সাইমান আনোয়াররা। ছয় ওভার শেষে তাদের সংগ্রহ দাঁড়ায় দুই উইকেটে ২১ রান।

এছাড়া আর কেউই দুই অঙ্কের রান ছুঁতে পারেন নি। রানের খাতা না খুলেই সাজঘরে ফেরেন অধিনায়ক আমজাদ জাবেদ। মিডল অর্ডারে নামা মুহাম্মদ উসমানের ব্যাট থেকে আসে ৯ রান।

ভারতের হয়ে সর্বোচ্চ দু’টি উইকেট লাভ করেন ভুবনেশ্বর কুমার। চার ওভারে দুই মেডেনে মাত্র ৮ রান দেন এ ডানহাতি পেসার। একটি করে উইকেট নেন জাসপ্রিত ভুমরাহ, হার্দিক পান্ডে, হরভজন সিং, পাওয়ান নেগি ও যুবরাজ সিং।

নিয়ম রক্ষার ম্যাচ হলেও ফাইনালের প্রস্তুতি হিসেবেই আরব আমিরাতের বিপক্ষে মাঠে নেমেছে ভারত। তবে এশিয়া কাপের বৃহস্পতিবারের ম্যাচে একাদশে তিনটি পরিবর্তন আনে টিম ইন্ডিয়া। প্রথম ব্যাট করে ৯ উইকেটে মাত্র ৮১ রান করেছে আমিরাত। যা এবারের আসরে এখন পর্যন্ত সর্বনিম্ন স্কোর। আগের রেকর্ডটি ছিল জিম্বাবুয়ের (২০১০ সালে)।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/এসএম

উপরে