আপডেট : ১ মার্চ, ২০১৬ ১৪:৪৩

ক্রিকেট অস্কার জিতলেন যারা

স্পোর্টস ডেস্ক
ক্রিকেট অস্কার জিতলেন যারা

২৮ ফেব্রুয়ারি ক্যালিফোর্নিয়ার লস অ্যাঞ্জেলেসের ডলবি থিয়েটারে সম্প্রতি অনুষ্ঠিত হল ৮৮ তম অ্যাকাডেমি পুরস্কার অনুষ্ঠান, সারা বিশ্ব যাকে বলে 'অস্কার'। গোটা বিশ্বের তামাম সিনেবোদ্ধাদের মধ্যে শ্রেষ্ঠ অভিনেতার খেতাব জিতলেন লিও। অস্কারে পুরস্কৃত হয়েছেন আরও অনেকেই। তবে অস্কার যদি ক্রিকেটেও দেওয়া হয়, কারা জিতবেন? কোন কোন বিভাগে কে কে পেতে পারেন ক্রিকেট অস্কার? ২০১৫ বর্ষ থেকে ২০১৬ জানুয়ারি এবং ফেব্রুয়ারির পারফরম্যান্সের নিরিখেই তৈরি করা হল ক্রিকেট অস্কার বিজেতাদের তালিকা।

শ্রেষ্ঠ মনোরঞ্জক-ব্র্যান্ডন ম্যাককালাম
শেষ ১৪ মাসে ক্রিকেটে সব থেকে হিট। টেলিভিশন থেকে ক্রিকেট প্রেমীদের মনে 'এন্টারটেইনার' বলতে যে নামটি সবথেকে বেশি প্রতিধ্বনিত হয়েছে, তিনি কিউই অধিনায়ক ব্র্যান্ডন ম্যাককালাম। ২০১৫ সালে ৪৭টি ইনিংসে 'ক্যাপ্টেন ফ্যান্টাসটিক' রান করেছেন ১৫২৩, যার মধ্যে রয়েছে ৯টি অর্ধশতরান এবং ২টি শতরান। তাঁর অধিনায়কত্বেই নিউজল্যান্ড প্রথমবার বিশ্বকাপ ফাইনালে ওঠে।
টেস্ট ইতিহাসে সবথেকে দ্রুত (৫৪ বলে শতরান) সেঞ্চুরির মালিক ম্যাককালাম ক্রিকেট অস্কারের শ্রেষ্ঠ মনোরঞ্জক বিভাগে একক বিজয়ী।

শ্রেষ্ঠ সংলাপ-মহেন্দ্র সিং ধোনি
শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে মাঠে নামবে ভারত। টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে ভারত বরাবরই ফেভারিট। তেমনই বিশ্ব ক্রিকেট ধোনির হেলিকপ্টার শটও শ্রেষ্ঠ আকর্ষণ। কিন্তু অনেক দিন ধরেই সেটা দেখা যাচ্ছে না। সাংবাদিকের এই প্রশ্নে 'ক্যাপ্টেন কুল' ধোনির জবাব, "আমি বাউন্সারেও হেলিকপ্টার মারতে পারব, যদি আমি একটা টুলের ওপর দাঁড়িয়ে ব্যাট করি"। এই সংলাপ নির্বাচিত হয়েছে ক্রিকেট অস্কারের শ্রেষ্ঠ সংলাপ বিভাগে।

শ্রেষ্ঠ কৌতূক ক্রিকেটার- জিমি নিশাম
কিউই অলরাউন্ডার জিমি নিশাম ২০১৫ বর্ষের শ্রেষ্ঠ কৌতূক ক্রিকেটার বিভাগে অস্কার জিতলেন। জিমির ট্যুইটারই তাঁর কৌতূকের ট্রেডমার্ক। তাঁর হাস্যকর ট্যুইটের 'দিওয়ানা' ক্রিকেটপ্রেমীরা।

শ্রেষ্ঠ সহযোগী ক্রিকেটার- অ্যাডাম ভগ
২০১৫ বর্ষে ১৫টি টেস্ট খেলে ভগ রান করেছেন ১৩৩৭। অবিশ্বাস্য গড়-৯৫.৫০। এই বর্ষেই তাঁর ঝুলিতে রয়েছে ৫টি শতরান ও ৪টি অর্ধশতরান। ৩৬ বছরের এই অজি ব্যাটসম্যান ৫ নম্বরে ব্যাটিং করেন। বর্তমান বিশ্বের ১ নম্বর টেস্ট দলে তাঁর ভূমিকাকে মাথায় রেখেই তাঁর হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে শ্রেষ্ঠ সহযোগী ক্রিকেটার বিভাগের অস্কার।

শ্রেষ্ঠ শর্ট ফিল্ম-ক্রিস গেইল
টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে বিধ্বংসী ব্যাটসম্যান ক্রিস গেইল জিতলেন শ্রেষ্ঠ শর্ট ফিল্ম পুরস্কার। বিগ ব্যাশ লিগে অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্নে ক্যারাবিয়ান কিংয়ের ১২ বলে ৫০ যা ২০০৭ সালে যুবরাজ সিংয়ের রেকর্ডকে ধরে ফেলেছে, গেইলকে এই শিরোপা দিতে একপ্রকার বাধ্য করেছে।

লাইফটাইম পুরস্কার-বীরেন্দ্র সেওয়াগ
৪৪৩টি আন্তর্জাতিক ম্যাচে বীরুর সংগ্রহ ১৭ হাজার ২৫৩ রান। গড়-৪০.৩১। শতরান-৩২। অর্ধশতরান-৭২। বীরেন্দ্র সেওয়াগ ভারতের একমাত্র ব্যাটসম্যান যিনি টেস্টে ত্রিশতরানের মালিক। পরিসংখ্যানেই বাকি সবার থেকে এগিয়ে বীরু জিতলেন ক্রিকেট অস্কারের লাইফটাইম পুরস্কার।

শ্রেষ্ঠ ডেবিউ- কাগিসো রাবাদা
ডেল স্টেইনের চোট, ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে দক্ষিণ আফ্রিকা দলে সু্যোগ পান ২০ বছরের কাগিসো রাবাদা। ৩ ম্যাচে সংগ্রহ ২১ উইকেট। ১৪টি আন্তর্জাতিক ম্যাচে ৩০টি উইকেট পেয়েছেন এই ২০ বছর বয়সী বোলার। যদিও ভারতের বিরুদ্ধে প্রথম মাঠে নেমেছিলেন রাবাদা, তবে তারপর খেলার বিশেষ সুযোগ পাননি। সেইহেতু শ্রেষ্ঠ ডেবিউ খেতাব জিতলেন রাবাদাই।

 

বিপিটাইমস৩৬৫ডটকম

 

উপরে