আপডেট : ২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ ১২:৪০

পেশোয়ারের অনেক টাকার প্রস্তাবও আটকাতে পারেনি তামিমকে

স্পোর্স ডেস্ক
পেশোয়ারের অনেক টাকার প্রস্তাবও আটকাতে পারেনি তামিমকে

পিএসএলে (পাকিস্তান সুপার লিগ ) বাংলাদেশের হয়ে যে তিনজন প্রতিনিধিত্ব করেছেন, তার মধ্যে অন্যতম হলেন তামিম ইকবাল। বাংলাদেশ জাতীয় দলের অন্যতম সেরা ও দলের মূল ব্যাটিং ভরসা তামিম মূলত একজন ওপেনার ব্যাটসম্যান হিসেবেই সুযোগ পেয়েছিলেন পিএসএলে। আর সেই সুযোগকে শতভাগ সদ্ব্যবহার করে টুর্নামেন্টের অন্যতম সেরা খেলোয়াড়ে পরিণত হয়েছেন তামিম।

তামিম চলতি পিএসএলে এখন পর্যন্ত অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান। মাত্র ৬ ম্যাচে ব্যাট করার সুযোগ পেলেও, তিন তিনটি অর্ধশতক সহ ২৬৭ রান নিয়ে এখনও তিনি টুর্নামেন্টের সেরা রান সংগ্রাহকদের তালিকায় ৩ নাম্বারে অবস্থান করছেন। আর তার নিজ দল পেশোয়ার জালমির হয়ে তিনিই সর্বোচ্চ রানের মালিক।

আর তামিমের এই দূর্দান্ত পারফর্মেন্সের হাত ধরেই গ্রুপপর্বের সমস্ত খেলা শেষে ১ নাম্বার অবস্থানে থেকেই প্লে-অফ পর্বে পা দিয়েছে পেশোয়ার জালমি। কিন্তু এই প্লে-অফ পর্বে বা তার পরবর্তী ধাপের আর কোনো খেলাতেই তামিমকে দলে পাচ্ছে না শহিদ আফ্রিদির জালমি। ব্যাক্তিগত কারণ দেখিয়ে তামিম ইতোমধ্যে পিএসএল ও দুবাই ছেড়ে এসে অবস্থান করছেন বাংলাদেশে।

আর দেশে ফেরার পর তামিম তার পিএসএল অভিজ্ঞতার কথা জানাতে গিয়ে পেশোয়ের জালমির দেয়া 'প্রস্তাবে'র কথাও উল্লেখ করেন। তিনি জানান তার দেশে ফিরে আসার কথা জেনে জালমি ফ্র্যাঞ্চাইজি থেকে তাকে আরো বড় অঙ্কের অর্থের প্রস্তাব করা হয়, এবং টুর্নামেন্টের শেষ পর্যন্ত তামিমকে দলের সাথে থেকে যাবার জন্য বলা হয়।

কিন্তু তামিমের কাছে পেশোয়ারের হয়ে খেলার চাইতে, পেশোয়ারের বড় অঙ্কের অর্থের প্রস্তাবের চাইতে সন্তানসম্ভবা স্ত্রীর পাশে থাকাটাই বেশি জরুরী মনে হয়েছে। আর তাইতো বাংলাদেশে ফিরে পুনরায় ব্যাংকক যাবার প্রয়োজনীয়তা অনুভব করে পেশোয়ারের বাড়ানো বড় অঙ্কের অর্থকেও না বলে দেন সহজভাবেই।

তামিম বলেন, " তারা আমাকে ছাড়তে মোটেও ইচ্ছুক ছিলোনা। তারা চেয়েছিলো যেন আমি অন্তত প্লে-অফ পর্যন্ত খেলে যাই অথবা সম্ভব হলে ফাইনাল পর্যন্তও। কিন্তু দুঃখজনকভাবে আমার দেশে ফেরা ছাড়া আর কোন উপায় ছিলোনা। তাই তাদের প্রস্তাব আমাকে ফিরিয়ে দিতেই হয়েছে।" 

তামিম আরো উল্লেখ করেন, " পেশোয়ার কর্তৃপক্ষ ছিলো খুবই বন্ধুত্বপূর্ণ। আমার ব্যক্তিগত সমস্যা জানার পর তারা মোটেও আমাকে থেকে যাওয়ার জন্য জোর করেনি। বরং পরের বছর যেন অন্য কোন দলের সাথে চুক্তিবদ্ধ না হয়ে পুনরায় তাদের হয়েই খেলি, সেজন্য অনুরোধও করেছে। আমি তাদের প্রতি বেশ খুশি।"

উপরে