আপডেট : ৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ২০:২৮

বিপুল অর্থে নামধারী আলেমদের কিনে নেওয়া হয়েছে: বাবুনগরী

অনলাইন ডেস্ক
বিপুল অর্থে নামধারী আলেমদের কিনে নেওয়া হয়েছে: বাবুনগরী

ইসলামবিরোধী শক্তিগুলো বিপুল অর্থ ঢেলে আমাদের মাঝে ফাটল ধরাতে আপ্রাণ চেষ্টা চালাচ্ছে। তারা আমাদের নিজেদের মধ্যে বিভেদ, মারামারি-হানাহানি ও ফেতনা সৃষ্টি করতে কিছু নামধারী আলেম ও ধার্মিকদের কিনে নিয়েছে। দীনের লেবাসে তারা আমাদের বিভ্রান্ত করছে। ফেতনা সৃষ্টি করছে।

বাংলাদেশ ও বিশ্বব্যাপী মুসলিম উম্মাহর মাঝে বর্তমানে যে সংকট তৈরি হয়েছে- তা থেকে উত্তরণের পথ হলো, আমাদের ঐক্যবদ্ধ হওয়া। এ বিষয়ে আপনাদের সতর্ক ও সজাগ থাকতে হবে।

বৃহস্পতিবার (০৬ ডিসেম্বর) সন্ধ্যা ৬টার দিকে এক তাফসিরুল কোরআন মাহফিলে এসব কথা বলেছেন হেফাজতের মহাসচিব ও হাটহাজারী মাদ্রাসার সহযোগী মহাপরিচালক আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী।

হাটহাজারী পার্বতী মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে তিন দিনব্যাপী তাফসিরুল কোরআন মাহফিলের দ্বিতীয় দিনে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন বাবুনগরী।

তিনি বলেন, টঙ্গি ইজতেমার মাঠে তাবলিগি সাথী, আলেম-ওলামা ও মাদ্রাসাছাত্রদের ওপর নৃশংস হামলাকারীদের অবিলম্বে গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। এ ছাড়া টঙ্গীতে হামলার মূলহোতা ও তাবলিগ জামাতে ফিতনা সৃষ্টিকারীদের দেশব্যাপী অবাঞ্ছিত ঘোষণা করা হলো।

আল্লামা বাবুনগরী বলেন, আমি সাধারণ তাবলিগি ভাইদের উদ্দেশে বলব, আপনারা হকের পথে থাকুন। হক্কানি ওলামায়ে কেরাম কোরআন-সুন্নাহ সম্পর্কে সবচেয়ে বেশি অবগত। তাদের দিকনির্দেশনা মেনে চলুন। তবেই দাওয়াতে তাবলিগের ময়দানে আপনাদের মেহনত-মোজাহাদা আল্লাহর দরবারে কবুল হবে।

মাহফিলের চার পর্বে সভাপতিত্ব করেন মাওলানা নোমান ফয়জী, মাওলানা মীর মোহাম্মদ কাসেম, মাওলানা সালাইদ্দীন নানুপুরি ও মাওলানা শিহাব উদ্দীন। মাহফিলে হাজার হাজার ধর্মপ্রাণ মুসল্লি অংশ নেন।

এতে তাফসির পেশ করেন হাফেজ মাওলানা হাসান জামিল ঢাকা, মাওলানা নাছির উদ্দীন যুক্তিবাদী গোপালগঞ্জী, মাওলানা মুফতি মুস্তাকুন্নবী কুমিল্লা, মাওলানা ফরিদ উদ্দীন আল মোবারক ঢাকা, মাওলানা নজীর আহমদ, মাওলানা আহমদ দীদার, মাওলানা জাহেদুল্লাহ, মাওলানা আবু আহমদ, মাওলানা আবু আহমদ, মাওলানা মোহাম্মদ, মাওলানা মাহমুদ,মাওলানা আবু সাঈদ ও মাওলানা রাশেদ প্রমুখ।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে