আপডেট : ২৩ জুলাই, ২০১৮ ১৬:০১

‘নাজমুলের সঙ্গে আমার সব হয়েছে, এখন কী করবো?’

অনলাইন ডেস্ক
‘নাজমুলের সঙ্গে আমার সব হয়েছে, এখন কী করবো?’

বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে কলেজ ছাত্রী প্রেমিকার অবস্থান করার খবর পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে রাজবাড়ীর কালুখালী উপজেলার কালিকাপুর ইউনিয়নের রায়নগর গ্রামের আঃ হালিম মাস্টারের বাড়িতে।

জানা গেছে, আঃ হালিম মাস্টারের পুত্র নাজমুল হোসেনের সঙ্গে পার্শ্ববর্তী নলকাদ্রা গ্রামের মোহাম্মদ আলীর কলেজ পড়ুয়া কন্যার সঙ্গে দীর্ঘ ৫ বছর যাবৎ প্রেমের সম্পর্ক ছিল। সম্প্রতি নাজমুল তার প্রেমিকাকে অস্বীকার করে অন্য জায়গায় বিয়ে করে। যার পরিপ্রেক্ষিতে বিয়ের দাবিতে নাজমুলের বাড়িতে অবস্থান নেয় প্রেমিকা।

রোববার (২২ জুলাই) সরেজমিনে গিয়ে ওই কলেজ ছাত্রীর সঙ্গে কথা বললে জানান সে জানায়, ‘শনিবার থেকে এখানে অবস্থান করছি। আমি নাজমুলকেই বিয়ে করব অন্যথায় আমার আত্মহত্যা করা ছাড়া আর কোনো পথ খোলা নেই।’

‘বিগত পাঁচ বছর ধরে নাজমুলের সঙ্গে আমার সব ধরনের সর্ম্পক হয়েছে। অথচ সে আমাকে বিয়ের আশ্বাস দিয়ে অন্যখানে বিয়ে করেছে।’

এদিকে ওই কলেজ ছাত্রী অবস্থান করার পর থেকেই পালিয়ে গেছেন নামজুল ও তার পরিবার। বাড়িতে শুধুমাত্র তার এক ফুফাত বোন রয়েছেন। তিনি বলেন, ‘এ ব্যাপারে আমি কিছুই জানি না। তাছাড়া ওনারা কেউ বাড়িতে নেই।’

এ ঘটনায় এলাকার উৎসুক জনতা ভিড় করছে হালিম মাস্টারের বাড়িতে। যার ফলে এ খবরে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

নাজমুল ও তার পিতা হালিম মাস্টারের মুঠোফোনে অনেকবার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তারা কেউ মোবাইল রিসিভ করেননি।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে