আপডেট : ২১ এপ্রিল, ২০১৮ ২০:২৮

বিয়ে না করলে আত্মহত্যার আল্টিমেটামে প্রধান শিক্ষকের বাড়িতে ছাত্রী

অনলাইন ডেস্ক
বিয়ে না করলে আত্মহত্যার আল্টিমেটামে প্রধান শিক্ষকের বাড়িতে ছাত্রী

বিয়ে না করলে আত্মহত্যা করবেন এমন আল্টিমেটাম দিয়ে রংপুরের পীরগঞ্জে শিক্ষকের বাড়িতে অবস্থান নিয়েছেন এইচএসসি পরীক্ষার্থী এক ছাত্রী।  শনিবার সকাল থেকে উপজেলার রামনাথপুর ইউনিয়নের জামদানী গ্রামের আবুল হোসেনের ছেলে ও জামদানী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মমিনুল ইসলাম সাবুর (৩৮) বাড়িতে অবস্থান নেন ওই শিক্ষার্থী।

ভুক্তভোগী ওই শিক্ষার্থী জানিয়েছেন, প্রধান শিক্ষক মমিনুল ইসলাম সাবুর সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে তার প্রেমের সম্পর্ক তার চলছে। বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে শিক্ষক মমিনুল বিভিন্নস্থানে নিয়ে তার সঙ্গে দৈহিক মিলনে লিপ্ত হন। সম্প্রতি বিয়ের জন্য চাপ দিলে প্রধান শিক্ষক টালবাহানা করতে থাকেন। একপর্যায়ে শনিবার সকালে বিয়ের দাবিতে মমিনুল ইসলাম সাবুর বাড়িতে গিয়ে অবস্থান নেন তিনি।

এ ঘটনায় দুই সন্তানের জনক সাবুর পরিবারের লোকজন ওই শিক্ষার্থীকে মারধর করে বাড়ি থেকে বের করে দেন। এরপর ‘হয় বিয়ে, নয়তো আত্মহত্যার’ আল্টিমেটাম দিয়ে বাড়ি সংলগ্ন রাস্তায় অবস্থান নেয় ওই শিক্ষার্থী।

ওই কলেজছাত্রী ধাপেরহাট মণিকৃষ্ণসেন ডিগ্রি কলেজ থেকে চলতি বছর এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ নিয়েছেন। আগামী ২৪ এপ্রিল এইচএসসির সমাজবিজ্ঞান বিষয়ে পরীক্ষা রয়েছে তার। তবে ওই ছাত্রীর অভিযোগ অস্বীকার করেছেন প্রধান শিক্ষক মমিনুল ইসলাম সাবু।

এ বিষয়ে পীরগঞ্জ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল করিম বলেন, স্থানীয় সাংবাদিকদের মাধ্যমে আমি বিষয়টি জেনেছি। ওই ছাত্রী কিংবা শিক্ষক; কেউই আমাদের কাছে অভিযোগ করেননি। আমরা অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নিব।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/রাসেল

উপরে