আপডেট : ১৭ অক্টোবর, ২০১৭ ২১:১৬

ঝিনাইদহে নিখোঁজ কলেজ ছাত্রকে ফেরত পেতে সংবাদ সম্মেলন

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি
ঝিনাইদহে নিখোঁজ কলেজ ছাত্রকে ফেরত পেতে সংবাদ সম্মেলন

ঝিনাইদহে নিখোঁজ কলেজ ছাত্রকে অক্ষত অবস্থায় ফেরত পেতে সংবাদ সম্মেলন করেছে তার পরিবার।
মঙ্গলবার দুপুরে ঝিনাইদহ প্রেসক্লাবে এক সাংবাদিক সম্মেলনে বৃদ্ধ পিতা মোমিনুর রহমান সরকারের কাছে এই দাবী করেন।

এ সময় নিখোঁজ মাকছুদের বৃদ্ধা মা ফিরোজা বেগম, ফুফু শাহানারা খাতুন, দাদি রহিমা খাতুন, চাচি আশুরা বেগম, বোন সুমাইয়া খাতুন, জান্নাতুল ফেরদৌস, ভাবি ফরিদা খাতুন ও চাচাতো ভাই আতিকুর রহমান উপস্থিত ছিলেন। লিখিত বক্তব্যে উল্লেখ করা হয়, মাকছুদুর রহমান ওরফে মাসুদ রানাকে গত বৃহস্পতিবার (১২ অক্টোবর) থেকে পাওয়া যাচ্ছে না। তাকে একটি কালো গাড়িতে করে কে বা করা তুলে নিয়ে গেছে। চলতি বছরে কোটচাঁদপুর সরকারী কলেজ থেকে সে ডিগ্রী পাশ পরীক্ষা শেষ করেছে। 

ঘটনার দিন হরিনদিয়া গ্রামের মসজিদ থেকে আসরের নামাজ আদায় করে মাকছুদ ও একই গ্রামের সামছুল আলমের ছেলে সাইফুল ইসলাম বের হলে একটি কালো রঙয়ের পাজেরো জীপে (ঢাকা মেট্রো-ঘ- ১৩-৭৭৬৯) অজ্ঞাত লোকেরা মোবাইল টাওয়ারের জন্য জমি দেখানোর কথা বলে নিয়ে যায়। পরে সাইফুলকে ছেড়ে দিলেও মাকছুদকে তারা নিয়ে যান। সেই থেকে আজো পাওয়া যাচ্ছে না মাকছুদকে।

লিখিত বক্তব্যে আরো উল্লেখ করা হয়, গত শুক্রবার রাত ৭টার দিকে কোটচাঁদপুর থানায় জিডি করতে গেলে পুলিশ আমাদের লেখা জিডি পরিবর্তন করে সাদামাটা একটি জিডি (জিডি নং ৪৮২) গ্রহন করেন। সেই থেকে আমাদের আশংকা প্রশাসনের লোকজনই হয়তো মাকছুদকে নিয়ে গেছে। বৃদ্ধ পিতা মো: মোমিনুর রহমান জানান আমি ও আমার পরিবার সন্তানকে ফিরে পেতে ব্যকুল। আমার সন্তান কোন রাজনৈতিক দলের সাথে যুক্ত নয়। তার নামে কোন মামলাও নেই। তার সন্তান যদি কোন অপরাধ করে থাকে তবে তাকে আইনের আওতায় এনে শাস্তি দেওয়া হোক। সাংবাদিক সম্মেলনের মাধ্যমে তিনি মাকছুদকে জীবিত ফিরে আকুতি জানান।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জেডএম

উপরে