আপডেট : ২৭ মার্চ, ২০১৬ ১১:২৯

বিএসএফের সাউন্ড গ্রেনেডে বাংলাদেশি নিহত

বিডিটাইমস ডেস্ক
বিএসএফের সাউন্ড গ্রেনেডে বাংলাদেশি নিহত
চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার গাইপাড়া সীমান্তে বিএসএফের সাউন্ড গ্রেনেডে এক বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরো দু’জন।

তবে নিহতের লাশ বিএসএফের নিয়ন্ত্রণে থাকায় তার নাম ও ঠিকানা জানা যায়নি।

এদিকে আহত দুই বাংলাদেশিকে সীমান্তের এপারে সহযোগীরা নিয়ে আসতে পারলেও বিজিবির ভয়ে তাদের গোপন স্থানের উদ্দেশ্যে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

শিবগঞ্জের গাইপাড়া গ্রামবাসী জানিয়েছেন, শনিবার দিনগত রাত আনুমানিক সাড়ে ৩টার দিকে গাইপাড়া গ্রামের তৈমুর রহমানের ছেলে আব্দুর রহিমের নেতৃত্বে ১০/১২ জনের একটি দল ২৬টি গরু নিয়ে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মুর্শিদাবাদ জেলার ঠাকুরবাড়ি সীমান্ত এলাকা দিয়ে বাংলাদেশের দিকে ফিরছিল।

এ সময় ভারতীয় সীমান্তের দুই কিলোমিটার ভেতরে ঠাকুরবাড়ি বিএসএফ ফাঁড়ির সদস্যরা প্রথমে বাংলাদেশী গরুর রাখালদের পথরোধ করে। এ সময় তারা সীমান্তের দিকে এগোতে থাকলে বিএসএফ তাদের লক্ষ্য করে সাউন্ড গ্রেনেড ছুড়ে। এতে এক বাংলাদেশী ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারায়। আহত হয় অপর দুই বাংলাদেশী।

তবে আহতদের নিয়ে বাংলাদেশিরা সীমান্তের এপারে ফিরে আসতে সক্ষম হয়। আহতদের রাতেই চিকিৎসার উদ্দেশ্যে গোপন স্থানে নিয়ে যাওয়া হয়েছে বলে স্থানীয়রা জানিয়েছেন।

শিবগঞ্জের অহেদপুর বিজিবি কোম্পানির কমান্ডার সুবেদার ইব্রাহিম হোসেন  জানান, রাতে সীমান্তের ওপারে গ্রেনেডের শব্দ পেয়েছেন। তবে এতে কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেছে কি-না বিজিবির পক্ষ থেকে নিশ্চিত হতে পারেননি। শুধু লোকমুখে হতাহতের কথা জেনেছেন। ভোর থেকে অনুসন্ধান চালানো হচ্ছে বলে জানান তিনি।

উল্লেখ্য এই সীমান্তে গত ৬ মার্চ বেনজির  নামের আরেক গরুর রাখালকে ঠাকুরবাড়ি ফাঁড়ির বিএসএফ গুলি করে হত্যা করে। ওই ঘটনার পর এই সীমান্ত এলাকায় ব্যাপক কড়াকড়ি আরোপ করা হয়। সেই থেকে গাইপাড়া সীমান্ত পথে কোনো বাংলাদেশীকে ভারতে যেতে দেয়া হচ্ছিল না।

তবে শনিবার রাতে ১০/১২ জনের একদল বাংলাদেশী বিজিবির চোখকে ফাঁকি দিয়ে ভারতে যায় গরু আনতে।
 
বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জেডএম
উপরে