আপডেট : ৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ ১৯:২০

নাটোরে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় যু্বলীগ নেতা আটক

বিডিটাইমস ডেস্ক
নাটোরে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় যু্বলীগ নেতা আটক

নাটোরে সাবেক যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী আহাদ আলী সরকারের বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় যুবলীগ নেতা রেদওয়ান আহমেদ সাব্বিরকে আটক করেছে পুলিশ।

বুধবার দুপুরে আহাদ আলী সরকার পৌর যুবলীগ সদস্য রেদওয়ান আহমেদ সাব্বিরের নামসহ অজ্ঞাত আরো ৮-৯ জনকে অভিযুক্ত করে নাটোর সদর থানায় মামলা দায়ের করেন।

মামলার পর পরই শহরের কানাইখালি নিজ বাড়ি থেকে সাব্বিরকে আটক করে পুলিশ। আটক সাব্বির একই এলাকার সোনা মিয়ার ছেলে এবং পৌর যুবলীগের সদস্য।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯ টার দিকে ৬-৭ জন সন্ত্রাসী সাবেক প্রতিমন্ত্রীর বাড়ির গেটে এসে আহাদ আলী সরকারের খোঁজ করতে থাকে। পরে সন্ত্রাসীরা বাড়ির ভেতরে ঢুকে আহাদ আলী সরকারের মেয়ে মৌসুমী ও মুক্তাকে মারধর করে তাদের স্বর্ণালংকার ছিনিয়ে নিয়ে যায়। এতে মৌসুমী এবং বাড়ির কেয়ারটেকার বাবু শেখ আহত হয়।

আহাদ আলী সরকারের স্ত্রী মনোয়ারা বেগম জানান, সন্ত্রাসীরা বাড়ির ভেতর প্রবেশ করলে তিনি ঘরের দরজা বন্ধ করে দেন। সন্ত্রাসীরা তাকে দরজা খোলার জন্য হুমকি দেয় এবং দরজায় লাথি মারতে থাকে। এ সময় তিনি মোবাইল ফোনে তার স্বামীকে ঘটনা জানান। সন্ত্রাসীরা তার ছোট মেয়ে মৌসুমীকে মারধর করে আহত করে। পরে তারা দুই মেয়ের স্বর্ণালংকার ছিনিয়ে নিয়ে চলে যায়।

হামলার ঘটনায় জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুস নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করে বিচার দাবি করেছেন।

নাটোর সদর থানার অফিসার ইনচার্জ মিজানুর রহমান জানান, এ ঘটনায় বুধবার দুপুরে সাবেক যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী আহাদ আলী সরকার পৌর যুবলীগের সদস্য রেদওয়ান আহমেদ সাব্বিরসহ অজ্ঞাত আরো ৮-৯ জনকে অভিযুক্ত করে মামলা দায়ের করেন।

 

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জেডএম

উপরে