আপডেট : ২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬ ২০:০২

যাত্রীদের সর্বস্ব লুটে নিলো ডাকাতদল

বিডিটাইমস ডেস্ক
যাত্রীদের সর্বস্ব লুটে নিলো ডাকাতদল

ব্রাক্ষণবাড়িয়ার নাসিরনগর-লাখাই মহাসড়কে যাত্রীবাহী পরিবহনে দিনের বেলায় প্রকাশ্যে ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে।

২ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলবার সকাল ৭টায় সড়কের পুটিয়া ব্রীজ ও ভূঁইয়ার ঘাটের মাঝামাঝি স্থানে দূর্ধর্ষ এ ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। এ সময় যাত্রী ও চালকদের মারধর করে সর্বস্ব লুটে নিয়ে তিনটি সিএনজি চালিত অটোরিকশা পাশের খাদে ফেলে দেয় ডাকাতদল।

জানা যায়, সকাল ৭টায় বিশ্বরোড থেকে নাসিরনগরগামী যাত্রীবাহী পাঁচটি সিএনজি চালিত অটোরিকশা ও একটি ঔষধ কোম্পানীর গাড়িকে আটক করে ১০-১২ জনের একদল সংঘবদ্ধ ডাকাত। মুখোশ পড়া ডাকাত দলের প্রত্যেকের হাতে ছিল লাঠি,ছুঁড়া, রামদা ও বল্লম। দেশীয় অস্ত্রের মুখে সকলকে জিম্মি করে যাত্রী ও চালকদের মারধর করে নগদ টাকা, মুঠোফোন সেট ও অন্যান্য মালামাল লুটে নেয়। পরে ডাকাতরা তিনটি অটোরিকশাকে সড়কের পাশে খাদে ফেলে দেয়।

সিএনজি চালক আক্কাস জানায়, সকালে সে নাসিরনগর থেকে ধর্মতীর্থ এলাকায় ইটভাটার শ্রমিকদের নিয়ে আসে। তাদের নামিয়ে নাসিরনগর ফেরার পথে দেখতে পায় ডাকাত দলের তান্ডব। প্রাণ রক্ষার্থে আক্কাস তার সিএনজিটি সড়কে রেখে পায়ে হেঁটে দক্ষিণ দিকে যেতে থাকে।

এ সময় ডাকাতরা তাকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল ছুঁড়তে থাকে। ইটের আঘাতে আক্কাস আহত হয়। পরে ডাকাতরা আক্কাসের সিএনজিটি (ব্রাহ্মণবাড়িয়া-থ-১১-২৪৪০) পাশের খাদে ফেলে দেয়। সকাল সাড়ে ১০টার দিকে আক্কাস লোকজন নিয়ে এসে তার সিএনজিটি উঠিয়ে নেয়।

সরাইল থানার কালিকচ্ছ বাজারের ব্যবসায়ি সুবাস চন্দ্র দাস বলেন, গতকাল (সোমবার) সকালে ওই সড়কে হাঁটতে গিয়েছিলাম। হঠাৎ করে মুখোশধারী ৬-৭ জন এসে আমাকে মারধর শুরু করল।

সরাইল থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আলী আরশাদ বলেন, এমন সংবাদ পায়নি। সকাল ৭টায় ডাকাতি করলে কি করব বলেন। খোঁজ খবর নিয়ে দ্রুত ব্যবস্থা নিব।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জেডএম

 

উপরে