আপডেট : ৩০ ডিসেম্বর, ২০১৫ ১৪:১১

মাধবদীতে কেন্দ্রে হামলা, রিটার্নিং কর্মকর্তা আহত

বিডিটাইমস ডেস্ক
মাধবদীতে কেন্দ্রে হামলা, রিটার্নিং কর্মকর্তা আহত

নরসিংদীর মাধবদী পৌরসভা নির্বাচনে একটি কেন্দ্র দখল করে ব্যালটে সিল মারার ঘটনায় ভোটগ্রহণ স্থগিতের পর জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারের উপস্থিতিতে হামলা ও ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে।

বুধবার সকাল ১০টার দিকে মাধবদী পৌরসভার ফজলুল করিম কিন্ডারগার্টেন স্কুল কেন্দ্রে এ ঘটনায় সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা নজরুল ইসলামসহ বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন।

এলাকাবাসী জানায়, আওয়ামী লীগের মেয়র পদপ্রার্থী হাজী মোশাররফ হোসেন এবং কাউন্সিলর প্রার্থী ওবায়দুর রহমান টিটুর সমর্থকরা কেন্দ্র দখলে নিয়ে ব্যালটে সিল মেরে বাক্স ভরার চেষ্টা করেন। পরে তারাই সেখানে হামলা ও ভাংচুর চালায়।

ভোটগ্রহণ স্থগিত ঘোষণার পর নজরুল ইসলাম সাংবাদিকদের বলেন, “যেভাবে হামলা হলো- আমি তো মরেই যাইতাম।”

ফজলুল হক কিন্ডারগার্টেন স্কুলের একজন কর্মচারী সাংবাদিকদের বলেন, “আওয়ামী লীগের প্রার্থীরা আইয়া নিজের হাতে সিল মারছে। এইটা নিয়ে মারামারি লাগছে।”

বেলা সাড়ে ১১টার দিকে কেন্দ্রে জেলা প্রশাসক আবু হেনা মোরশেদ হাসান ও পুলিশ সুপার আমেনা বেগমের উপস্থিতিতে ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। পরে সেখান থেকে আরেকটি ককটেল অবিস্ফোরিত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়।

 

বেলা পৌনে ১২টার দিকে দুই কর্মকর্তা সেখান থেকে ফিরে যাওয়ার সময় ৫০ গজ দূরে আরও দু’টি ককটেল ফাটানো হয়।

এদিকে নরসিংদি পৌরসভা নির্বাচনেও নৌকা প্রার্থীর সমর্থকরাও দুটি কেন্দ্র ‘দখল’ করে ব্যালটে সিল মেরেছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির প্রার্থী সাইফুল ইসলাম।

তিনি বলেন, “এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশনকে আনুষ্ঠানিক অভিযোগ জানানোর বিষয়টি প্রাক্রিয়াধীন।”

অবশ্য পুলিশ দাবি করেছে, নরসিংদী পৌরসভায় কোনো ‘সমস্যা’ হয়নি।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/এআর

উপরে