আপডেট : ২১ এপ্রিল, ২০১৮ ১৩:৩৭

সুফিয়া কামাল হলের তিন ছাত্রীকে হলে ফিরিয়েছে প্রশাসন

অনলাইন ডেস্ক
সুফিয়া কামাল হলের তিন ছাত্রীকে হলে ফিরিয়েছে প্রশাসন

শিক্ষার্থীদের প্রতিবাদের মুখে অবশেষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কবি সুফিয়া কামাল হলের তিন ছাত্রীকে হলে ফিরিয়ে এনেছে হল প্রশাসন। গতকাল শুক্রবার বিকেলে ও সন্ধ্যায় তারা হলে ফিরেছেন বলে জানিয়েছেন হল প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. সাবিতা রেজওয়ানা রহমান।

তিনি বলেন, তাদের তো সিট বাতিল কিংবা বের করে দেয়ার কোনো ঘটনা ঘটেনি। অভিভাবকদের হাতে দেয়া হয়েছে, যেনো তারা তাদের সন্তানকে কাউন্সিলিং করেন। তারা গতকাল হলে ফিরেছেন এবং হলের খেলায়ও অংশগ্রহণ করেছেন দুইজন ছাত্রী।

প্রাধ্যক্ষ বলেন, তাদেরকে তাদের পরিবার আবার হয়তো নিয়েও যেতে পারেন। আসা-যাওয়ার মধ্যে এখন তাদের পরিবার ও আমরা কাউন্সেলিং করবো।

অধ্যাপক সাবিতা বলেন, গতরাতে হলে একটি সাধারণ সভা হয়েছে, যেখানে প্রায় সাড়ে ৫ শতাধিক ছাত্রী অংশ নিয়েছে এবং তারা বলেছে, তারা ভালো আছে, তাদের নিয়ে কেউ গুজব ছড়াচ্ছে।'

ওই সভায় তিন ছাত্রীর একজন বক্তৃতাও করেছেন বলে জানান প্রাধ্যক্ষ।

কোটা সংস্কারের আন্দোলনের মধ্যে ছাত্রলীগ নেত্রী ইফফাত জাহান এশাকে হেনস্তার ঘটনার তদন্তে কবি সুফিয়া কামাল হল কর্তৃপক্ষ বৃহস্পতিবার রাতে ছাত্রীদের জিজ্ঞাসাবাদ করে। এরই এক পর্যায়ে রাত ১০টা থেকে ১টার মধ্যে ওই হলের তিন ছাত্রীকে তাদের স্থানীয় অভিভাবকের কাছে তুলে দেয়া হয়। আরেক ছাত্রীর অভিভাবক এলেও গভীর রাত হয়ে যাওয়ায় শেষ পর্যন্ত ওই শিক্ষার্থীকে হলে রাখা হয়।

শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, যারা সাম্প্রতিক কোটা সংস্কার আন্দোলনে যুক্ত ছিলেন, তাদের ডেকে ডেকে ‘তদন্তের নামে হয়রানি’ করছে হল কর্তৃপক্ষ।

এ ঘটনায় শুক্রবার সারাদেশে বিক্ষোভ করেছে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ। এ সময় তারা প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক সাবিতা রেজওয়ানা রহমানের পদত্যাগ দাবি করেন।

বিডিটাইমস৩৬৫/জামি

উপরে