আপডেট : ১৭ নভেম্বর, ২০১৭ ২১:৪৯

তারকারা কেন ‘প্লাস্টিক সার্জারি’ করান?

অনলাইন ডেস্ক
তারকারা কেন ‘প্লাস্টিক সার্জারি’ করান?

কৃষ্ণাঙ্গ বলে সমাজে নিচু চোখে দেখছে সবাই। মনোস্তাত্ত্বিক এই টানাপোড়নে প্লাস্টিক সার্জারি করে নিজেকে ফর্সা করে তোলেন পপ সম্রাট মাইকেল জ্যাকসন। নিজের চেহারার কৃষ্ণাঙ্গ থেকে শ্বেতাঙ্গে রংবদল নিয়ে কম সমালোচনা সহ্য করতে হয়নি তাকে। এর জন্য চর্মরোগ জনিত সমস্যায়ও জীবদ্দশায় ভুগতে হয়েছিল। একাধিকবার শরীরের অসংখ্য জায়গায় সার্জারি করেছেন। তিনি এক বার মজা করে বলেন,‘ হলিউডের যে তারকারা প্লাস্টিক সার্জারি করিয়েছেন তাঁরা সবাই একসঙ্গে ছুটি কাটাতে গেলে গোটা হলিউড খালি হয়ে যাবে।’

শোবিজে থাকতে গেলে এ ধরনের সার্জারি নাকি আবশ্যকীয়। মিস ইউনিভার্স, মিস ওয়ার্ল্ড প্রতিযোগিতাতেও রিকনস্ট্রাকটিভ সার্জারি বহু আগে বৈধ হয়েছে। সৌন্দর্য্য বর্ধন ও বয়সটা ধরে রাখার এ উপায় মিস করেন না বলতে গেলে কোন তারকাই। হলিউডের হিসেবে গেলে দীর্ঘ লাইন।

বলিউডে তারকারাও কম হাটেননি এ পথে। শোনা যায় সালমান খান কয়েকবার হেয়ার ট্রান্সপ্লান্ট করিয়েছেন। রণবীর কাপুর পছন্দসই হেয়ারলাইন বানিয়েছেন। হেমা মালিনীও তাঁর ত্বক আর চোখের নীচের বলিরেখা ধরে রেখেছেন এই উপায়েই। শোনা যায়, সার্জারির বদৌলতেই নাকি সাইফ আলি খানের টিয়াপাখির মতো নাক বদলে এখন অনেক চোখা। শ্রীদেবী-শিল্পা-মিনিশা লাম্বা-কোয়েনার নাকের রাইনোপ্লাস্টি, বিপাশা-সুস্মিতা-রাখি সাওয়ান্তের ব্রেস্ট ইমপ্লান্ট তো ওপেন সিক্রেট।

বিশ্বসুন্দরীর খেতাব জেতার সময়ে প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার চেহারা মোটেও আজকের মতো ছিল না। ঠোঁট আর নাকের গঠন অনেকটাই বদলে ফেলেছেন সার্জারি উপায়ে। শিল্পা শেঠীর বয়সটাও কি বাড়ে না? লাস্যময়ীর খেতাবটা ধরে রেখেছেন ক্যারিয়ারের শুরু থেকে। প্লাস্টিক সার্জারিতে মুখের অবয়ব পুরোদস্তুর বদলে ফেলেছেন শিল্পা। আবেদনময়ী রূপ থেকে এখন তার চোখে মুখে ভারতীয় নারীর সারল্যই বেশি। ‘রাব নে বানা দি জোড়ি’র উচ্ছল হাসির আনুশকা এখন কেবলই স্মৃতি। চোয়ালের গঠনে বদল আনতে গিয়ে আনুশকা প্লাস্টিক সার্জারির শরণাপন্ন হয়েছিলেন। ফলাফলটা বাজে ছাড়া ভালো হয়নি, এ কথা খোদ আনুশকাও মানেন! ‘পিকে’ আনুশকাকে আগের ছবির সঙ্গে তুলনা করলেই হিসেব মিলে যাবে।

নব্বই দশকের কারিশমা মাঝখানে ডুব মেরেছিলেন। ফিরে যখন এলেন তখন অন্য কোন রুপ। সবাই ভাবতে শুরু করলেন কি যেন মিসিং। অত:পর উত্তর মিললো উচ্ছল সেই মেয়েটি থেকে হয়ে উঠেছেন অভিজাত কোন নারী।

ক্যাটরিনাও পিছিয়ে পড়েননি। প্রথম ছবি ‘বুম’ থেকে অনেকটাই পরিবর্তন খেয়াল করবেন পরে। নাক আর ঠোঁটে সময়ের ফেরে ভালোই বদল এনেছেন ক্যাট। বলিউড ‘কুইন’ হয়ে ওঠার এই দীর্ঘ কঙ্গনাও হেটেছেন প্লাস্টিক সার্জারির পথে। গুজব রয়েছে, কেবল মুখমণ্ডলই নয়, শারীরিক গঠনেও কিছু বদল এনেছেন এই বেপরোয়া অভিনেত্রী।

নাকের গড়ন বদলাতে প্লাস্টিক সার্জারি করেছেন মিনিশা লাম্বা। নাক হয়তো বা সাধ্যমতো হয়েছে, কিন্তু তাঁর মিষ্টি সরল হাসিটিও সঙ্গে অতীত হয়ে গেছে!

প্রায় সবাই জানতে চায়, আজকাল করণ জোহরকে কেন এত তরুণ লাগছে? মুখের আদলেও রয়েছে হালকা পরির্বতন! তাহলে কী করণও অন্যান্য বলিউড নায়ক-নায়িকাদের মতো প্ল্যাস্টিক সার্জারি করেছেন? করণ জোহর রাখঢাকের মানুষ না, তাই সরাসরি জানিয়েছেন , হ্যাঁ, আমি বোটোক্স করিয়েছি!

এ তালিকায় আরও আছেন অমিতাভ বচ্চন, শাহরুখ খান, আয়েশা টাকিয়া, জুহি চাওলা , প্রীতি জিনতা, গৌরি খান, কারিনা কাপুর খান সহ আরও অনেকে। তাদের প্রত্যেকেরেই শরীরের কোন না কোন অংশ সৌন্দর্য্য বর্ধনের জন্য সে পথে হেঁটেছেন। তাতে অনেকের সৌন্দর্য্য বর্ধন হলেও কেউবা তার ন্যাচারাল বিউটি হারিয়ে সমলোচনায় পড়েছেন।

শোবিজের তীব্র প্রতিযোগিতায় ভরা ময়দানে অনবরত টিকে থাকা আর শ্রেষ্ঠ হওয়ার লড়াই চলে নিয়মিত। গ্ল্যামার, ক্যামেরার ফ্ল্যাশলাইটের ঝলকানি, অ্যাওয়ার্ড, সম্মান, দাপট—কে না পেতে চায়! আর এসবের জন্য নিজেদের শল্য চিকিৎসকের ছুরির নিচে সঁপে দিতেও একদম পিছপা হননা তারকারা!

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/জিএম

উপরে