আপডেট : ২৯ ডিসেম্বর, ২০১৫ ১২:২২

সীমানা ছাড়িয়ে, চল না-হারিয়ে যাই

বিনোদন ডেস্ক
সীমানা ছাড়িয়ে, চল না-হারিয়ে যাই

মুম্বাই বিমানবন্দরে কোহলি ও আনুষ্কাকে একসঙ্গে দেখা গিয়েছে। তার পরেই বেড়ে গিয়েছে জল্পনা। আনুষ্কা হেসেখেলে পোজ দিলেও, কোহলি উলটোটাই করেছেন। হাত দিয়ে মুখ ঢেকেছেন। তাতে তো আর গুঞ্জন বন্ধ হচ্ছে না!

সামনেই নতুন বছর। বছরের শুরুতেই অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে নামতে হবে কোহলিকে। তার আগে রয়েছে প্রস্তুতিপর্ব। ফলে নতুন বছর শুরু হতেই বেড়ে যাবে ব্যস্ততা। আনুষ্কাও ব্যস্ত হয়ে পড়বেন শ্যুটিংয়ে। তখন দু’ জনের হাতে আর সময় থাকবে না।

বরং এই সময়টায় খেলা-শুটিং নেই। ব্যস্ততাও নেই। কোহলি ও আনুষ্কা নিজেদের জন্যই বেছে নিয়েছেন সময়টা। তাই সীমানা ছাড়িয়ে, চল না-হারিয়ে, মন যে দিকে চায়!

কিন্তু যাচ্ছেনটা কোথায় এই যুগল? সেই খবর দিতে পারছে না কেউ।

ভিতরে ভিতরে প্রশ্নের মালা গাঁথছেন ভক্তরা। কেউ হয়ে পড়ছেন শার্লক হোমস। তাতেও রহস্য উদঘাটন হচ্ছে না। হবেও না। কারণ অনুষ্কা ও কোহলি তো মুখ ফুটে কিছুই বলছেন না।

একটু উষ্ণতার খোঁজে কি যাচ্ছেন বিরাট-অনুষ্কা? না কি সবার অলক্ষ্যে তাঁরা একে অপরের অনামিকায় পরিয়ে দেবেন আংটি? হতেই পারে।

বিডিটাইমস৩৬৫ডটকম/এআর

উপরে